ব্যাংক এশিয়ার এজেন্ট ব্যাংকিংয়ের ১৬ লাখ টাকা লুটের নেপথ্যে ‘ছিনতাই’

ঢাকা, শনিবার   ৩১ জুলাই ২০২১,   শ্রাবণ ১৬ ১৪২৮,   ২০ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

ব্যাংক এশিয়ার এজেন্ট ব্যাংকিংয়ের ১৬ লাখ টাকা লুটের নেপথ্যে ‘ছিনতাই’

আখাউড়া (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২১:৫৮ ২৩ জুন ২০২১   আপডেট: ২১:৫৯ ২৩ জুন ২০২১

উদ্ধারকৃত টাকাসহ গ্রেফতারকৃত দুইজন

উদ্ধারকৃত টাকাসহ গ্রেফতারকৃত দুইজন

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ায় ‘ছিনতাই’ নাটক সাজিয়ে ব্যাংক এশিয়ার এজেন্ট ব্যাংকিংয়ের ১৬ লাখ টাকা লুটের ৪২ ঘণ্টা পর দুইজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এ সময় ১২ লাখ ৪৫ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়েছে।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- নবীনগর থানাধীন নারুই (নোয়াগাঁও) গ্রামের জিয়াউর রহমানের ছেলে হাবিব, নজরুল ইসলামের ছেলে সাইফুল। বুধবার তাদের গ্রেফতার করা হয়।

এর আগে, রোববার (২০ জুন) আখাউড়া উপজেলার ধরখার ইউনিয়নের রুটি এলাকায় ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, চার বছর ধরে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর উপজেলার নোয়াগাঁও বাজারে ব্যাংক এশিয়ার এজেন্ট ব্যাংকিং সেবা দিচ্ছেন সাদেক মিয়া। ওই প্রতিষ্ঠানের কাস্টমার সার্ভিস অফিসার এনামুল হক বিশ্বস্ত মোটরসাইকেল চালক হাবিবের মাধ্যমে ব্যাংক এশিয়ার ব্রাহ্মণবাড়িয়া শাখা থেকে টাকা আনা-নেয়া করেন। সেই বিশ্বাসের সুযোগ নিয়ে ছিনতাইয়ের নাটক সাজিয়ে গত রোববার ১৬ লাখ টাকা লুট করেন হাবিব। তাকে সহযোগিতা করেন সাইফুল।

আখাউড়া থানার ওসি মিজানুর রহমান জানান, ওই ঘটনায় ভুক্তভোগী সাদেক মিয়া মামলা করেছেন। এরই মধ্যে দুইজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। লুট করা ১২ লাখ ৪৫ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়েছে। বাকি তিন লাখ ৫৫ হাজার টাকা ও ঘটনার সঙ্গে জড়িত বাকিদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর