অভিশাপ থেকে ৩৫০ মেয়েকে রক্ষা করলেন ইউএনও

ঢাকা, বুধবার   ০৪ আগস্ট ২০২১,   শ্রাবণ ২০ ১৪২৮,   ২৪ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

অভিশাপ থেকে ৩৫০ মেয়েকে রক্ষা করলেন ইউএনও

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৮:৪১ ১৯ জুন ২০২১  

ইউএনও মো. আনিছুর রহমান

ইউএনও মো. আনিছুর রহমান

বাল্যবিয়ে একটি সামাজিক অভিশাপ। আর এ অভিশাপ থেকে তিন শতাধিক স্কুলগামী মেয়েকে রক্ষা করেছেন সিরাজগঞ্জের বেলকুচির ইউএনও মো. আনিছুর রহমান।

জেলার তিন উপজেলায় দায়িত্ব পালনের সময় ৩৫০টি বাল্যবিয়ে বন্ধের দৃষ্টান্ত স্থাপন করেন তিনি। এর স্বীকৃতিস্বরূপ সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান থেকে তাকে সম্মাননা দেওয়া হয়েছে। শনিবার দুপুরে ইউএনও নিজেই এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

ইউএনও আনিছুর রহমান জানান, তিনি চৌহালী উপজেলায় নির্বাহী, সদর উপজেলায় ভূমি কর্মকর্তা ও বেলকুচিতে নির্বাহী কর্মকর্তা হিসেবে দায়িত্ব নেয়ার পর এ পর্যন্ত ৩৫০টি বাল্যবিয়ে বন্ধ করেছেন। বেলকুচিতে ১০০টি, চৌহালীতে ৩৪টি ও সদর উপজেলায় ২১৬টি বিয়ে বন্ধ করেন তিনি। তিনটি উপজেলায় অপ্রাপ্তবয়স্ক স্কুলগামী মেয়েদের বাল্যবিয়ের হাত থেকে রক্ষা করেছেন।

সর্বশেষ গতকাল শুক্রবার রাতে বেলকুচি পৌরসভার চালা মধ্যপাড়া এলাকায় অষ্টম শ্রেণির এক ছাত্রীর বাল্যবিয়ে বন্ধ করেন ইউএনও আনিছুর।

তিনি বলেন, বাল্যবিয়ে একটি সামাজিক অভিশাপ। এতে মাতৃমৃত্যু ও শিশুমৃত্যু বেড়ে যায়। এছাড়া নারীর ক্ষমতায়ন কমে যায়। শিগগিরই বেলকুচি উপজেলাকে বাল্যবিয়ে মুক্ত উপজেলা হিসেবে গড়ে তোলা হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমআর