বেহাত হচ্ছে রেলওয়ের শত একর জমি

ঢাকা, বুধবার   ০৪ আগস্ট ২০২১,   শ্রাবণ ২০ ১৪২৮,   ২৪ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

বেহাত হচ্ছে রেলওয়ের শত একর জমি

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৯:৩৬ ১২ জুন ২০২১  

হবিগঞ্জে রেলওয়ের জমিতে প্রভাবশালীদের স্থাপনা

হবিগঞ্জে রেলওয়ের জমিতে প্রভাবশালীদের স্থাপনা

হবিগঞ্জে যে যেভাবে পারছে রেলওয়ের জমি দখল করে নিচ্ছে। এরই মধ্যে প্রভাবশালীদের দখলে চলে গেছে বাল্লা-শায়েস্তাগঞ্জ এলাকার পরিত্যক্ত রেললাইনের শত শত একর জমি। এমনকি নিজেদের মতো করে পাকা-আধা পাকা স্থাপনাও গড়ে তুলেছে দখলদাররা। কয়েকটি স্থানে আবার রেললাইনের পাশেই গড়ে উঠেছে বাজার। এতে মৃত্যুঝুঁকি বাড়ার পাশাপাশি বেহাত হচ্ছে সরকারের কোটি টাকার সম্পত্তি।

স্থানীয়দের অভিযোগ, দীর্ঘদিন ধরেই চলছে রেলওয়ের এসব জমি দখলের হিড়িক। রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ বলছে, সরকারি জমি দখল করার এখতিয়ার কারো নেই।  দখল হওয়া জমি উদ্ধারে শিগগিরই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

বাল্লা রেলস্টেশনের পরিত্যক্ত ভবন

জানা গেছে, হবিগঞ্জ সদর থেকে বাল্লা পর্যন্ত ৪৫ কিলোমিটার রেললাইন স্থাপ্ন করা হয় ১৯২৮ সালে। ২০০৩ সালে বাল্লা-শায়েস্তাগঞ্জ রেলপথ বন্ধ হয়ে যায়। ব্রিটিশ আমলে নির্মিত এ রেলপথ দিয়ে মানুষের যাতায়াতের পাশাপাশি ভারতীয় পণ্য পরিবহন করা হতো। কিন্তু ট্রেন চলাচল বন্ধ হয়ে যাওয়ায় ১৮ বছর ধরে পরিত্যক্ত ও অরক্ষিত পড়ে আছে এ রেলপথটি। এ কারণেই রেললাইনের দুইপাশের শত শত একর জমি চলে যাচ্ছে দখলদারদের হাতে। রাতের আঁধারে চুরি হয়ে যাচ্ছে রেল লাইনের স্লিপারসহ কোটি টাকার সম্পদ।

শায়েস্তাগঞ্জ রেলস্টেশনের মাস্টার এবিএম সাইফুল ইসলাম জানান, এরই মধ্যে দখলদারদের কবল থেকে জমি উদ্ধার করা শুরু হয়েছে। উচ্ছেদ অভিযান চলছে। এছাড়া চোরাকারবারীদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

শায়েস্তাগঞ্জ রেলওয়ের উপ-সহকারী প্রকৌশলী (পথ) মো. সাইফুল্লাহ রিয়াদ জানান, সরকার এরই মধ্যে রেলের সব শাখা লাইন পুনরায় চালুর পরিকল্পনা করছে। পর্যায়ক্রমে বাল্লা-শায়েস্তাগঞ্জ রেলপথও চালু হবে। এটা হলেই রেলওয়ের জমিগুলো দখলমুক্ত করা সম্ভব হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর