চুরি করা গাড়ি বেচতে দিলো না পুলিশ

ঢাকা, রোববার   ২০ জুন ২০২১,   আষাঢ় ৮ ১৪২৮,   ০৮ জ্বিলকদ ১৪৪২

চুরি করা গাড়ি বেচতে দিলো না পুলিশ

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২০:৪০ ৯ মে ২০২১  

গাড়ি চোর চক্রের গ্রেফতারকৃত ছয় সদস্য

গাড়ি চোর চক্রের গ্রেফতারকৃত ছয় সদস্য

নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে আন্তঃজেলা গাড়ি চোর চক্রের ছয় সদস্যকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এ সময় তাদের কাছ থেকে একটি চোরাই মাইক্রোবাস, দুটি ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা, একটি মিশুক ও প্রাইভেটকারের যন্ত্রাংশ উদ্ধার করা হয়েছে।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার দেলপাড়া কলেজ রোডের মো. হযরত আলীর ছেলে মামুন, কায়েমপুরের রমজান মিয়ার ছেলে ইব্রাহিম, পূর্ব ইসদাইর এলাকার আসাদুজ্জামান মণ্ডলের ছেলে রাজু আহম্মেদ, পূর্বপাড়ার নুরুল ইসলামের ছেলে মো. আরিফ হোসেন, আড়াইহাজারের কাদিরদা পশ্চিম পাড়ার মো. হান্নান তালুকদারের ছেলে মো. রাসেল তালুকদার, ফরিদপুরের সদরপুর থানার চর রামনগরের মো. হাবিব মোল্লার ছেলে সম্রাট আকবর।

শনিবার মধ্যরাত থেকে রোববার ভোর পযর্ন্ত সদর উপজেলার পৌষাপুকুর পাড়ের টাগারপাড়, কায়েমপুর ফকিরা গার্মেন্টসের পেছনের বিলাশ নগর ও ইসদাইর বুড়ির দোকন এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

ফতুল্লা মডেল থানার এসআই ইমানুর জানান, নিয়মিত ডিউটি করার সময় সংবাদ পান- কায়েমপুর থেকে রাত ৯টার দিকে একটি মাইক্রোবাস চুরি হয়েছে। রাত সাড়ে ১২টার দিকে আরেকটি সংবাদ আসে যে- ভূইঘর এলাকায় মাইক্রোবাসটি বিক্রির জন্য নেয়া হচ্ছে। সেখানে গিয়ে কাউকে না পেলেও গোপন সূত্রে জানতে পারেন- চোর চক্রটি পৌষাপুকুর পাড়ের টাগারপাড় এলাকায় অবস্থান করছে। পরবর্তীতে টাগারপাড় এলাকায় অভিযান চালিয়ে মামুন ও রাসেলকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

তিনি আরো জানান, মামুন ও রাসেলের দেয়া তথ্যে একটি ফাঁকা মাঠ থেকে চুরি হওয়া মাইক্রোবাসসহ ইব্রাহিমকে গ্রেফতার করা হয়। পরে ইব্রাহিমের দেয়া তথ্যে কায়েমপুর ফকিরা গার্মেন্টেসের পেছনের বিলাশ নগরের আরিফের গ্যারেজ থেকে ব্যাটারিচালিত দুটি অটোরিকশা, একটি মিশুক ও প্রাইভেটকারের বডি-যন্ত্রাংশ উদ্ধার করা হয়। এ সময় আরিফ, রাজু ও সম্রাটকে গ্রেফতার করা হয়।

ফতুল্লা মডেল থানার ওসি রকিবুজ্জামান জানান, গ্রেফতারকৃতরা সবাই পেশাদার গাড়ি চোর চক্রের সদস্য। তাদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। পুলিশের তৎপরতায় চোরাই মাইক্রোবাসটি বিক্রি করতে পারেনি চোর চক্রের সদস্যরা। গাড়িটি যথাযথ প্রমাণ সাপেক্ষা মালিকের কাছে পৌঁছে দেয়া হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর