দূরপাল্লার বাস ছেড়ে বঙ্গবন্ধু সেতুর যানজট নিরসন

ঢাকা, বুধবার   ২৩ জুন ২০২১,   আষাঢ় ১০ ১৪২৮,   ১১ জ্বিলকদ ১৪৪২

দূরপাল্লার বাস ছেড়ে বঙ্গবন্ধু সেতুর যানজট নিরসন

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২০:৪৬ ৮ মে ২০২১   আপডেট: ২০:৪৯ ৮ মে ২০২১

বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিম পাড়ের যানজট

বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিম পাড়ের যানজট

সিরাজগঞ্জের বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিম গোলচত্বর হতে নলকা এলাকা পর্যন্ত প্রায় ১০ কিলোমিটার দীর্ঘ যানজট সৃষ্টি হয়েছে। এতে আটকে পড়েছে পণ্যবাহী ট্রাকগুলো। যানজট সৃষ্টির পেছনে দূরপাল্লার বাসগুলো দায়ী বলে জানিয়েছে পুলিশ। পরবর্তীতে বাসগুলো ছেড়ে দেয়া হয়েছে। এতে যানজট স্বাভাবিক হতে শুরু করেছে।

সরেজমিনে দেখা গেছে, সেতুর পশ্চিম পাড় ছাড়া মহাসড়কের আর কোথাও দূরপাল্লার বাস নেই। শনিবার সকাল থেকে দূরপাল্লার বাসগুলো কড্ডা এলাকায় আটকে দিলে শ্রমিকরা আন্দোলন শুরু করে। পরবর্তীতে কিছু বাস ফেরত পাঠানো হয় এবং কিছু বাস ছেড়ে দেয় পুলিশ। এখনো যানজটে আটকে আছে অনেক বাস ও ট্রাক। এছাড়া কয়েকশ ব্যক্তিগত গাড়ি উল্টোপথে চলাচল করায় যানজট তীব্র হয়েছে।

বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিম পাড়ের যানজট

সিরাজগঞ্জ ট্রাফিক বিভাগের ইন্সপেক্টর মো. আব্দুল গণি বলেন, দূরপাল্লার বাসগুলো সিরাজগঞ্জের মহাসড়কে আটকে দেয়া হয়। অনেক গাড়ি চেকপোস্ট পেরিয়ে গেলেও টোলপ্লাজায় গিয়ে আটকে যায়। এতেই যানজট সৃষ্টি হয়। পরে কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলে মানবিক কারণে দূরপাল্লার বাসগুলো ছেড়ে দেয়ার পর যান চলাচল স্বাভাবিক হয়েছে। তবে আজকের পর আর কোনো দূরপাল্লার বাস ছাড়া হবে না।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (কামারখন্দ সার্কেল) বলেন, আমরা কিছু বাস ফিরিয়ে দিয়েছি। পরবর্তী দুইদিক থেকে আরো দূরপাল্লার বাস চলে আসায় বঙ্গবন্ধু সেতুরর পশ্চিম পাড়ে ১০ কিলোমিটার দীর্ঘ যানজট সৃষ্টি হয়। এমনকি বাসগুলো না ছাড়ায় শ্রমিকরা আন্দোলন শুরু করে।

বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিম পাড়ের যানজট

তিনি আরো বলেন, অনেক বাস দুইদিন ধরে আটকে ছিল। যানজট নিরসনের জন্য ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের পরামর্শে আটকে থাকা বাসগুলো ছেড়ে দেয়া হয়। তবে এখন থেকে আর কোনো দূরপাল্লার বাস এ মহাসড়ক দিয়ে চলতে দেয়া হবে না। এমনকি নির্দেশনা অমান্য করলে আইনি পদক্ষেপও নেয়া হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর