‘আপনি রোজাদার হলে এ উপহার আপনার’

ঢাকা, শনিবার   ১২ জুন ২০২১,   জ্যৈষ্ঠ ৩০ ১৪২৮,   ০১ জ্বিলকদ ১৪৪২

‘আপনি রোজাদার হলে এ উপহার আপনার’

শাহজাদপুর (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৭:৫১ ৮ মে ২০২১  

স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ‘আলোকবর্তিকা’র ইফতার কার্যক্রম

স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ‘আলোকবর্তিকা’র ইফতার কার্যক্রম

ইফতারের ঘণ্টাখানেক আগে থেকেই রাস্তার পাশে থরে থরে সাজানো থাকে কয়েকশ ইফতারের প্যাকেট। এসব প্যাকেট নিয়ে ইফতার করে অসহায়, দরিদ্র ও শ্রমজীবীরা। সমাজের নিম্নবিত্ত মানুষের জন্য এমন উদ্যোগ নিয়েছে সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর উপজেলার স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ‘আলোকবর্তিকা’।

এক করোনা পরিস্থিতি, তার ওপর রমজান মাস। এ পরিস্থিতিতে কাজের জন্য নানা স্থানে ঘুরে বেড়ায় অসহায় ও শ্রমজীবীরা। বাড়ি গিয়ে পরিবার নিয়ে ইফতার করার সুযোগ হয় না। এ কারণে তাদের জন্য ইফতারের আয়োজন করেছে ‘আলোকবর্তিকা’।

ইফতারের ঘণ্টাখানেক আগে শাহজাদপুর সরকারি মডেল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের সামনে রাস্তার পাশে থরে থরে ইফতার সাজিয়ে রাখছেন সংগঠনটির সদস্যরা। প্রতিটি প্যাকেটে বিরিয়ানির সঙ্গে থাকছে ডিম, লেবু, খেজুরসহ অনেক কিছু। সেখানে একটি ব্যানারে লেখা- আপনি রোজাদার হলে এখানকার একটি উপহার আপনার। নিঃসংকোচে আপনার উপহারটি নিয়ে যান।

পথচারী, অসহায়, রোজাদার, দরিদ্র ও শ্রমজীবী মানুষ ইফতারের সময় নিজেরাই তুলে নিয়ে যাচ্ছেন ‘আলোকবর্তিকা’র এ ইফতার। আবার কারো হাতে তুলে দিচ্ছেন সংগঠনের সদস্যরা। নবম রোজা থেকে তারা এ কার্যক্রম শুরু করেন। সারাদিন রোজা রাখার পর মানসম্পন্ন ইফতার পেয়ে খুশি শ্রমজীবী ও অসহায়রা।

সংগঠনের প্রধান সমন্বয়ক শাহজাদপুর মডেল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক সুমনা আক্তার শিমু বলেন, স্কুলপড়ুয়া শিক্ষার্থীদের নিয়ে গঠিত হয়েছে ‘আলোকবর্তিকা’। প্রথমে আমরা নিজেদের সামান্য টাকায় দরিদ্র মানুষের ইফতারের কর্মসূচি শুরু করি। এরপর অনেকেই আমাদের সঙ্গে অংশ নেন। শেষ রোজা পর্যন্ত আমরা ইফতার বিতরণ কার্যক্রম চালিয়ে যাব। যে কেউ আমাদের সঙ্গে যুক্ত হতে পারেন।

সাংবাদিক ও মানবাধিকার কর্মী শুভ চৌধুরী বলেন, ‘আলোকবর্তিকা’র এ উদ্যোগ সত্যিই প্রশংসনীয়। এভাবে বিত্তবানরা সমাজের দরিদ্র ও অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ালে তাদের জীবনযাপন অনেক সহজ হয়ে যেত।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর