কলাপাড়ায় আনসার-জনতা সংঘর্ষে নারীসহ আহত ১৪

ঢাকা, বুধবার   ২৩ জুন ২০২১,   আষাঢ় ১০ ১৪২৮,   ১১ জ্বিলকদ ১৪৪২

কলাপাড়ায় আনসার-জনতা সংঘর্ষে নারীসহ আহত ১৪

কলাপাড়া (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২০:৪৮ ৭ মে ২০২১  

সংঘর্ষে নিক্ষেপ করা ইট-পাটকেল

সংঘর্ষে নিক্ষেপ করা ইট-পাটকেল

পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় মসজিদ নির্মাণ নিয়ে দ্বন্দ্বের জেরে আনসার সদস্যদের সঙ্গে স্থানীয় জনতার সংঘর্ষ হয়েছে। আধা ঘণ্টাব্যাপী এ সংঘর্ষে তিন নারীসহ ১৪ জন আহত হয়েছেন।

শুক্রবার দুপুরে কলাপাড়া পৌর শহরের নাচনাপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

গুরুতর আহতরা হলেন- ওই এলাকার নূর আলম, তানিয়া, শাহীন, রোজিনা, আবুল কালাম, শামীম, জেসমিন, ফোরকান, রাশিদা, জাকির হাওলাদার, আলাউদ্দিন। তাদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। বাকিদের প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ছেড়ে দেয়া হয়েছে।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে স্থানীয়দের সঙ্গে কথা বলছে পুলিশ

সংঘর্ষের পর কলাপাড়া সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আলী আহমেদ, ইউএনও আবু হাসনাত মোহাম্মদ শহিদুল হক, পৌর মেয়র বিপুল চন্দ্র হাওলাদার, কলাপাড়ার ওসি খন্দকার মোস্তাফিজুর রহমান, জেলা আনসার ব্যাটালিয়নের কমান্ডিং অফিসার মো. কামরুজ্জামান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, নাচনাপাড়া এলাকায় একটি নির্মাণাধীন মসজিদে নামাজ আদায় নিয়ে আনসারদের সঙ্গে স্থানীয়দের বাগবিতণ্ডা হয়। এক পর্যায়ে দুই পক্ষ ইট-পাটকেল ও লাঠিসোটা নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এতে নারীসহ কমপক্ষে ১৪ জন আহত হয়েছেন।

জেলা আনসার ব্যাটালিয়নের কমান্ডিং অফিসার মো. কামরুজ্জামান দুঃখ প্রকাশ করে বলেন, অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনাটির তদন্ত করে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

কলাপাড়া থানার ওসি খন্দকার মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, পরিস্থিতি বর্তমানে শান্ত রয়েছে। উপজেলা প্রশাসন, জনপ্রতিনিধি ও আনসার ব্যাটালিয়নের কমান্ডিং অফিসার স্থানীয়দের সঙ্গে বৈঠক করেছেন। এখন পর্যন্ত কোনো পক্ষ লিখিত অভিযোগ করেনি।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর