মৃত চাচিকে দেখে ফেরার পথে লাশ হলো নিজেই

ঢাকা, রোববার   ১৩ জুন ২০২১,   জ্যৈষ্ঠ ৩১ ১৪২৮,   ০১ জ্বিলকদ ১৪৪২

মৃত চাচিকে দেখে ফেরার পথে লাশ হলো নিজেই

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২২:০৭ ৬ মে ২০২১  

নিহত স্কুলছাত্রী রুবায়েত আফরোজ সেজুতি

নিহত স্কুলছাত্রী রুবায়েত আফরোজ সেজুতি

একদিন আগেই হৃদরোগে আক্রান্ত মারা গিয়েছিলেন নাছিমা বেগম। সকাল হতেই চাচিকে শেষবারের মতো দেখতে মাকে সঙ্গে গ্রামের বাড়িতে ছুটে যায় স্কুলছাত্রী রুবায়েত আফরোজ সেজুতি। তবে আর বাসায় ফেরা হলো না তার। পথেই অটোরিকশার চাকার সঙ্গে গলার ওড়না পেঁচিয়ে মৃত্যু হলো তার।

বৃহস্পতিবার দুপুরে ঘটনাটি ঘটেছে ময়মনসিংহের ভালুকা উপজেলার সাতেঙ্গা গ্রামে।

জানা গেছে, নিহত সেজুতি ওই গ্রামের রুহুল আমিন মাস্টারের একমাত্র মেয়ে। সে ভালুকা সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্রী ছিল। সপরিবারে তারা থাকতো ভালুকা পৌর সদরে।

ভালুকা মডেল থানার ওসি মাহমুদুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, বুধবার রাতে রুহুল আমিন মাস্টারের চাচাতো ভাই বাদল মিয়ার স্ত্রী নাছিমা বেগম নামাজরত অবস্থায় হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান। বৃহস্পতিবার মৃত চাচিকে একনজর দেখতে মায়ের সঙ্গে গ্রামের বাড়ি সাতেঙ্গায় যায় সেজুতি।

তিনি আরো জানান, তার চাচির জানাজা শেষে দুপুর ১২টার দিকে বাসায় ফেরার জন্য ব্যাটারিচালিত অটোরিকশায় উঠে তারা। এ সময় হঠাৎ সেজুতির গলায় থাকা ওড়নাটি অটোরিকশাটির চাকায় পেঁচিয়ে যায়। এতে শ্বাসরোধে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় তার। 

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএম