দুই ওষুধ ব্যবসায়ীর ধর্ষণে স্বামী পরিত্যক্তা অন্তঃসত্ত্বা

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ০৬ মে ২০২১,   বৈশাখ ২৩ ১৪২৮,   ২৩ রমজান ১৪৪২

দুই ওষুধ ব্যবসায়ীর ধর্ষণে স্বামী পরিত্যক্তা অন্তঃসত্ত্বা

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২০:২৫ ২২ এপ্রিল ২০২১  

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

নারায়ণগঞ্জ সদরের এক স্বামী পরিত্যক্তা প্রতিবন্ধী নারীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে দুই ওষুধ ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে। বর্তমানে ওই নারী অন্তঃসত্ত্বা। এ ঘটনায় তাদের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন ওই নারীর ভাই।

আসামিরা হলেন- ওই উপজেলার পাগলা চিতাশাল এলাকার কুসুমবাগ ২ নম্বর গলির খালেক দেওয়ানের ছেলে খলিলুর রহমান ও বজলুর রহমানের ছেলে মো. রাসেল।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, কয়েক বছর আগে ওই নারীর বিয়ে হয়। কিন্তু প্রতিবন্ধী হওয়ায় বিয়ের দুই মাস পর স্বামী তাকে ফেলে চলে যায়। এরপর থেকে ওই নারী ভাইয়ের বাড়িতেই থাকতেন। আসামি খলিলুর রহমান তাদের বাড়িতেই ভাড়া থাকতেন। এছাড়া মো. রাসেলও তাদের প্রতিবেশী। দুজনেরই ফার্মেসি রয়েছে। এ কারণে মাঝেমধ্যে বাবা-মার ওষুধ আনতে খলিলের দোকানে যেতেন ওই নারী। চলতি বছরের ১৭ জানুয়ারি দুপুরে ওষুধ আনতে গেলে খলিলুর তাকে ফুসলিয়ে দোকানের পেছনের ঘরে নিয়ে ধর্ষণ করে। এরপর প্রায়ই সে ওই নারীকে ধর্ষণ করে।

আরো জানা গেছে, ৩১ জানুয়ারি সন্ধ্যায় ওই প্রতিবন্ধী নারী তার এক আত্মীয়ের বাসায় যাচ্ছিলেন। ওই সময় আরেক ওষুধ ব্যবসায়ী রাসেল তাকে ফুসলিয়ে নিজের বাসায় নিয়ে ধর্ষণ করে। এতে তিনি অসুস্থ হয়ে পড়েন। চলতি মাসের ১১ তারিখ স্থানীয় ডায়াগনস্টিক সেন্টারে তার আল্ট্রাসনোগ্রাম করানো হয়। রিপোর্টে দেখা যায়- তিনি তিন মাস এক দিনের অন্তঃসত্ত্বা।

ফতুল্লা মডেল থানার ওসি রকিবুজ্জামান জানান, বাদীর অভিযোগ তদন্ত করে সত্যতা পাওয়ায় বুধবার মামলা হিসেবে গ্রহণ করা হয়। আসামিদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর