প্রতিমন্ত্রীর হস্তক্ষেপে দুই জেলার মানুষের দুর্ভোগ লাঘব

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ০৬ মে ২০২১,   বৈশাখ ২৩ ১৪২৮,   ২৩ রমজান ১৪৪২

প্রতিমন্ত্রীর হস্তক্ষেপে দুই জেলার মানুষের দুর্ভোগ লাঘব

জামালপুর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২০:৩৪ ১৯ এপ্রিল ২০২১   আপডেট: ২২:৩০ ২৪ এপ্রিল ২০২১

লৌহজং খালের দুই পাড়ের সড়কে মাটি ভরাট করা হচ্ছে

লৌহজং খালের দুই পাড়ের সড়কে মাটি ভরাট করা হচ্ছে

তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসানের হস্তক্ষেপে দুই জেলার মানুষের কষ্ট লাঘব হয়েছে। দীর্ঘদিনের কষ্ট দূর হওয়ায় তাকে ধন্যবাদ জানিয়েছে ভুক্তভোগী কয়েক হাজার মানুষ।

প্রতিমন্ত্রীর নির্দেশে জামালপুরের সরিষাবাড়ী উপজেলার পিংনা ইউনিয়নের নরপাড়া ও টাঙ্গাইলের গোপালপুর উপজেলার ঝাওয়াইল ইউনিয়নের ভাদাই গ্রামের উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া লৌহজং খালের উপর নির্মিত ব্রিজের সংযোগ সড়ক নির্মাণ করে দিচ্ছেন।

পিংনা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোতাহার হোসেন জয় জানান, লৌহজং খালের দুই পাশের প্রায় আট হাজার মানুষ প্রতিদিন এই সড়ক ব্যবহার করে। ব্রিজের সংযোগ সড়ক না থাকায় তাদের পোহাতে হয় নিদারুণ দুর্ভোগ। প্রতিমন্ত্রীর হস্তক্ষেপে এবার দুই জেলার ভুক্তভোগীদের দুর্ভোগ লাঘব হবে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদফতরের সেতু/কালভার্ট নির্মাণ প্রকল্পের আওতায় ২০১৬-১৭ অর্থবছরে ব্রিজটি নির্মাণ করা হয় লৌহজং খালের উপর। নির্মাণের চার বছরেও সড়কের অভাবে ব্রিজটি ব্যবহার করতে পারেনি দুই গ্রামের মানুষ। এ সড়ক দিয়ে যাতায়াতের জন্য তারা ব্রিজের পাশে একটি বাঁশের সাঁকো তৈরি করেছিল।

তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসানের উদ্যোগে লৌহজং ব্রিজের দুই পাশে সড়ক নির্মাণ কাজ তদারকি করছেন পিংনা ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান। তিনি জানান, খালের দুই পাশের মানুষ এই সড়ক ব্যবহার করেই জামালপুর-টাঙ্গাইল শহর ও ঢাকায় যাতায়াত করে। এছাড়া দুই গ্রামের আট শতাধিক শিক্ষার্থী খাল পার হয়েই স্কুল-কলেজে যায়। সংযোগ সড়ক নির্মাণের মধ্য দিয়ে তাদের দীর্ঘদিনের কষ্ট দূর হলো।

ঝাওয়াইল ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ড মেম্বার আব্দুর রহিম জানান, ব্রিজের অংশটি পিংনা ইউনিয়নের মধ্যে পড়েছে। সংশ্লিষ্টদের বারবার অনুরোধ করা হলেও তারা ব্রিজের দুই পাশের সড়কের মাটি ভরাট করেনি। দুর্ভোগ কমাতে ঝাওয়াইল ইউনিয়ন পরিষদের পক্ষ থেকে প্রতি বছর ২০০-২৫০ গজ দীর্ঘ বাঁশের সাঁকো তৈরি করে দেয়া হতো।

এদিকে লৌহজং খালের উপর নির্মিত ব্রিজের দুই পাশের সড়কের মাটি ভরাটের কাজ দ্রুত শেষ করার নির্দেশ দিয়েছেন তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান। সড়ক নির্মাণ কাজ শুরু হওয়ায় খুশি দুই ইউনিয়নের মানুষ। তারা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসানকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর/এইচএন/এমকে