কুষ্টিয়ায় প্রভাবশালী নেতার মারধরের শিকার রেলওয়ের বৃদ্ধ কর্মচারী

ঢাকা, সোমবার   ১৯ এপ্রিল ২০২১,   বৈশাখ ৬ ১৪২৮,   ০৬ রমজান ১৪৪২

কুষ্টিয়ায় প্রভাবশালী নেতার মারধরের শিকার রেলওয়ের বৃদ্ধ কর্মচারী

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১২:১৯ ৬ মার্চ ২০২১   আপডেট: ১২:২৭ ৬ মার্চ ২০২১

কুষ্টিয়ায় প্রভাবশালী নেতার মারধরের শিকার রেলওয়ের বৃদ্ধ কর্মচারী

কুষ্টিয়ায় প্রভাবশালী নেতার মারধরের শিকার রেলওয়ের বৃদ্ধ কর্মচারী

কুষ্টিয়ায় শহিদুল ইসলাম নামের বৃদ্ধ রেলকর্মীকে মারপিট ও দাড়ি উপড়ে ফেলার অভিযোগ উঠেছে স্থানীয় প্রভাবশালী নেতা ও তার কর্মীদের বিরুদ্ধে। স্থানীয় নেতা ওয়াহেদ খান রনি ও তার সহযোগীদের বিরুদ্ধে শারীরিক নির্যাতনের অভিযোগ করেছেন রেলওয়ের কর্মচারী শহীদুল ইসলাম। 

আহত শহিদুল ইসলামের ছেলে মাসুদ রানা বলেন, কুষ্টিয়া মিলপাড়ায় কাজ করার সময় ওয়াহেদ খান রনিসহ বেশ কয়েকজন শত্রুতার জেরে বেধড়ক মারধর করে আমার বৃদ্ধ বাবাকে।। এতে সে মারাত্মকভাবে আহত হয়। বর্তমানে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের ১০ নম্বর ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। 

কুষ্টিয়া মডেল থানার ওসি শওকত কবির জানান, এ ঘটনায় শহিদুল ইসলামের ছেলে মাসুদ রানা ওয়াহেদ খান রনিসহ ৮ জনের নাম উল্লেখ করে কুষ্টিয়া মডেল থানায় এজাহার দায়ের করা হয়েছে। 

ওসি আরো জানান, শুক্রবার রাতে ওয়াহেদ খান রনি, আনোয়ার হোসেন, রাজা, সোহেল রানা, নুর আলম, রুস্তম, সুজন কানা, লিটন ও রিপনসহ ১৫-২০ জন শত্রুতার জেরে হত্যার উদ্দেশ্যে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে শহিদুলকে ঘিরে ফেলে। এ সময় রনি এবং আনোয়ার তার বুকের উপর উঠে লাথি মারতে থাকেন। এ সময় শহিদুল ইসলামের ছেলে মাসুদ রানাসহ কয়েকজন এগিয়ে আসলে  বাকিরা তাদেরকেও মারধর করে।

শহিদুল ইসলাম বলেন, রনি আমাকে মারধর করেছে। এমনকি আমার দাড়ি উপড়ে ফেলা হয়েছে। আমি এর বিচার চাই। 

এ বিষয়ে ওয়াহেদ খান রনির সঙ্গে একাধিকবার যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তা সম্ভব হয়নি। 

ওসি শওকত কবির বলেন, এ বিষয়ে এজাহার পেয়েছি। অবশ্যই আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। অপরাধী যেই হোক তাকে দ্রুত আইনের আওতায় আনা হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএস/জেএইচ