ভাত নিয়ে বাবার কাছে ফেরা হলো না ছোট্ট তানিয়ার

ঢাকা, শনিবার   ১৭ এপ্রিল ২০২১,   বৈশাখ ৪ ১৪২৮,   ০৪ রমজান ১৪৪২

ভাত নিয়ে বাবার কাছে ফেরা হলো না ছোট্ট তানিয়ার

নেত্রকোনা প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০০:৪০ ৩ মার্চ ২০২১  

দোকানে বসা তানিয়া আক্তার -ফাইল ছবি

দোকানে বসা তানিয়া আক্তার -ফাইল ছবি

শারীরিক প্রতিবন্ধকতা নিয়েও ব্যবসা করেন নুরুল হক। বাড়ির পাশেই রয়েছে ছোট্ট একটি মুদি দোকান। তার দুই মেয়ে। এর মধ্যে বাবার ব্যবসার কাজে সহযোগিতা করে আট বছর বয়সী তানিয়া আক্তার। পাশাপাশি সময়মতো বাড়ি থেকে বাবার জন্য খাবার নিয়ে যায়।

মঙ্গলবার রাতেও নিজে খেয়ে বাবার জন্য ভাত নিয়ে দোকানে যাচ্ছিল তানিয়া। কিন্তু বালুবাহী একটি ট্রাক চিরদিনের জন্য বাবা-মেয়ের ভালোবাসার ইতি ঘটালো। ভাত নিয়ে তানিয়ার আর দোকানে যাওয়া হলো না। এর আগেই সড়কে ঝরল তার প্রাণ।

হৃদয়বিদারক ঘটনাটি ঘটেছে নেত্রকোনার পূর্বধলা উপজেলার আতকাপাড়া পেট্রল পাম্পের কাছে। নিহত তানিয়ার বাড়ি একই এলাকায়।

স্থানীয়রা জানায়, প্রতিদিনের মতো বাবার জন্য ভাত নিয়ে দোকানে যাচ্ছিল তানিয়া। আতকাপাড়া পেট্রল পাম্পের কাছে পৌঁছালে বিপরীত থেকে আসা দ্রুতগতির বালুবাহী একটি ট্রাক তাকে চাপা দিয়ে পালিয়ে যায়। এতে ট্রাকের নিচে পিষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই নিহত হয় তানিয়া।

মেয়েকে হারিয়ে বাকরুদ্ধ হয়ে পড়েছে পুরো পরিবার। মেয়ের লাশের পাশে বসেই আহাজারি করছেন বাবা নুরুল হকসহ স্বজনরা।

এদিকে, এ ঘটনার পর সড়ক অবরোধ করে প্রায় কয়েক শতাধিক ট্রাক ভাঙচুর করে বিক্ষুব্ধরা। এছাড়া দুর্গাপুর-শ্যামগঞ্জ সড়কে যান চলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়।

এ ব্যাপারে পূর্বধলা থানার ওসি শিবিরুল ইসলাম জানান, যান চলাচল স্বাভাবিক রাখতে সড়কে পুলিশ সদস্যরা কাজ করছেন। এছাড়া লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমআর