ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভায় শান্তিপূর্ণভাবে ভোট গ্রহণ চলছে

ঢাকা, মঙ্গলবার   ১৩ এপ্রিল ২০২১,   চৈত্র ৩০ ১৪২৭,   ২৯ শা'বান ১৪৪২

ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভায় শান্তিপূর্ণভাবে ভোট গ্রহণ চলছে

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১০:১৭ ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

পঞ্চম ধাপের পৌর নির্বাচনে ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভায় শান্তিপূর্ণভাবে ভোট গ্রহণ চলছে। রোববার সকাল ৮টা থেকে এ ভোট শুরু হয়েছে এবং বিকেল ৪টা পর্যন্ত চলবে। 

ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভার ৪৮টি ভোট কেন্দ্রের ৩৩৯টি ভোট কক্ষে ৫৯ হাজার ৫৬২ জন পুরুষ ভোটার ও ৬০ হাজার ৯৪২ জন মহিলা ভোটার মোট ১ লাখ ২০ হাজার ৫০৪ জন ভোটার এই প্রথম ইভিএম-এর মাধ্যমে তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন। আনন্দঘন পরিবেশের মধ্যে দিয়ে ভোট গ্রহণ শুরু হয়েছে। শুরু থেকেই কেন্দ্রগুলোতে ভোটারদের উপস্থিতি চোখে পড়ার মতো।

রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে ৬ জন এর মধ্যে আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থী ও বর্তমান মেয়র (নৌকা প্রতীক) নায়ার কবিরের সাথে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী (ধানের শীষ) মোঃ জহিরুল হক খোকন, বাংলাদেশ ওয়ার্কার্স পার্টি মনোনীত (হাতুড়ী) মোঃ নজরুল ইসলাম, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ মনোনীত (হাত পাখা) আবদুল মালেক, আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী ও জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি (মোবাইল ফোন) হাজী মাহমুদুল হক ভূইয়া ও স্বতন্ত্র প্রার্থী (নারিকেল গাছ) মোঃ আবদুল কারীম। এছাড়া ১২টি সাধারণ ওয়ার্ডের কাউন্সিলর পদে ৫৬ জন ও সংরক্ষিত ওয়ার্ডের কাউন্সিলর পদে ১৫ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌর কলেজের প্রিজাইডিং অফিসার মনির হোসেন বলেন, প্রথম দিকে ভোটার উপস্হতি কম হলে ও দিন বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ভোটার বাড়ছে। সুষ্ঠু ও সুন্দর পরিবেশেই ভোট গ্রহণ চলছে। ইভিএমে প্রথম ভোট হওয়াতে ভোটারদের বুঝতে একটু সমস্যা হচ্ছে। 

ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভার নির্বাচনে রিটার্নিং অফিসার ও জেলা নির্বাচন অফিসার মোহাম্মদ জিল্লুর রহমান জানান, নির্বাচনী এলাকা নিরাপত্তা ব্যবস্হা জোরদার করা হয়েছে। ১৬টি মোবাইল টিম, ১২টি স্ট্রাইকিং ফোর্স, ৭টি স্ট্যান্ডবাই ফোর্স, ১২টি চেক পোস্ট ডিউটি, ২টি নৌ-টহল ডিউটিসহ ৮০০ জন পুলিশ মোতায়েন আছে। পাশাপাশি ১২ প্লাটুন বিজিবি, ৪৪২ জন আনসার, ২৭ জন র‌্যাব সদস্যর পাশাপাশি ভোট কেন্দ্রে ২৫ জন এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট ও ১জন জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট দায়িত্ব পালন করছেন। নির্বাচনে এখন পর্যন্ত কোথাও কোনো অপ্রীতিকর ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএস