পাবনার একমাত্র নারী বীর মুক্তিযোদ্ধা ভানু নেছার মৃত্যু

ঢাকা, শনিবার   ১৭ এপ্রিল ২০২১,   বৈশাখ ৫ ১৪২৮,   ০৪ রমজান ১৪৪২

পাবনার একমাত্র নারী বীর মুক্তিযোদ্ধা ভানু নেছার মৃত্যু

পাবনা প্রতিনিধি  ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৮:০৩ ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১  

নারী বীর মুক্তিযোদ্ধা ভানু নেছা-ফাইল ফটো

নারী বীর মুক্তিযোদ্ধা ভানু নেছা-ফাইল ফটো

পাবনার তালিকাভুক্ত একমাত্র নারী বীর মুক্তিযোদ্ধা ভানু নেছা মারা গেছেন ( ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। শুক্রবার দুপুর ২টার দিকে সাঁথিয়া উপজেলার নন্দনপুর ইউনিয়নের তেথুঁলিয়া গ্রামে নিজ বাসভবনে তার মৃত্যু হয়। তার বয়স হয়েছিল ৮৫ বছর। সাঁথিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) এসএম জামাল আহমেদ এ তথ্য নিশ্চিত করেন। 

ভানু নেছার ছোট ছেলে শহীদুল ইসলাম জানান, বিকেল সাড়ে ৫টায় তেথুলিয়া গ্রামে তার জানাজা হয়। 

সাঁথিয়া উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা আ. লতিফ জানান, ভানু নেছাকে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন করা হয়েছে। ভানু িনেছাই ছিলেন পাবনার তালিকাভূক্ত একমাত্র নারী মুক্তিযোদ্ধা।

তিনি বলেন, একাত্তরে নন্দনপুরে যখন পাক বাহিনীর সঙ্গে যুদ্ধ শুরু হয়, তখন আমরা বাংকারে ছিলাম। এই ভানু নেছা তখন আমাদের অনেকভাবে সহযোগিতা করেছিলেন। তিনি কোমরে বেঁধে থানা থেকে গোলাবারুদ নিয়ে মুক্তিযোদ্ধাদের সরবরাহ করেছিলেন। একবার গুলি লেগে তিনি আহত হয়েছিলেন। 

সাঁথিয়ার নন্দনপুর ইউনিয়নের তেথুঁলিয়া গ্রামের বাসিন্দা ভানু নেছার স্বামী আব্দুল প্রামাণিক কয়েক বছর আগে মারা যান। তার ভাতার টাকা দিয়ে অন্ন বস্ত্রের সংস্থান হতো।

ভানু নেছার ছেলে ইউনুস আলী জানান, দেড় বছর ধরে মা বিছানা থেকে উঠতে পারতেন না। কোলে করে এক জায়গা থেকে আরেক জায়গায় নিতে হতো। পক্ষাঘাতগ্রস্ত হওয়ায় ইশারায় কথা বলতেন। এক বছর ঠিকমতো খেতে পারেননি। 

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) এস এম জামাল আহমেদ বলেন, আমি তার অসুস্থতার সময়ে খোঁজ-খবর নিয়েছি। বিভিন্নভাবে সহযোগিতা করেছি। তার নাতির কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করেছি। তার মৃত্যুতে আমি ব্যথিত। 

এদিকে বীর মুক্তিযোদ্ধা ভানু নেছার মৃত্যুতে তার পরিবারের প্রতি সমবেদনাসহ শোক জানিয়েছেন সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী পাবনা-১ আসনের এমপি অ্যাডভোকেট শামসুল হক টুকু, উপজেলা চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল-মাহমুদ দেলোয়ার, সাঁথিয়া পৌরসভার মেয়র মাহবুব আলম বাচ্চু, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সাঁথিয়ার সাবেক কমান্ডার আ. লতিফ, যুব লীগের কেন্দ্রীয় নেতা অ্যাডভোকেট আসিফ শামস রঞ্জন প্রমুখ।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ