মালামালসহ স্কুলের ভবন বিক্রি করে দিলেন প্রধান শিক্ষক

ঢাকা, মঙ্গলবার   ০২ মার্চ ২০২১,   ফাল্গুন ১৭ ১৪২৭,   ১৭ রজব ১৪৪২

মালামালসহ স্কুলের ভবন বিক্রি করে দিলেন প্রধান শিক্ষক

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২১:১০ ২৭ জানুয়ারি ২০২১  

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার বাজুমারা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পুরাতন একতলা ভবন বিক্রির অভিযোগ উঠেছে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকের মোশারফ হোসেনের বিরুদ্ধে। ওই উপজেলার চিলমারী ইউনিয়নের পদ্মার চর এলাকায় অবস্থিত ভবনটি মালামালসহ বিক্রি করেছেন তিনি।

এ ঘটনায় ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মোশারফ হোসেনের শাস্তি দাবি করেছে স্থানীয়রা। তাকে দ্রুত আইনের আওতায় নিতে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন করেছে ওই এলাকার মানুষ।

চিলমারী ইউনিয়ন পরিষদের এক মেম্বার জানান, করোনায় সারাদেশে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ছিল। সেই সুযোগে গোপনে স্কুল ভবনটি বিক্রি করে দিয়েছেন মোশারফ হোসেন। বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির সভাপতির সঙ্গে যোগসাজশে নদীগর্ভে বিলীন হওয়ার দোহাই দিয়ে স্কুলের টিনশেড ঘর, পুরাতন টিনসহ অন্যান্য মালামাল ৭ লাখ ৩০ টাকায় বিক্রি করেছেন। এছাড়া ২০১৯ ও ২০২০ সালে স্লিপ প্রকল্প, বৃহৎ ও ক্ষুদ্র মেরামতের জন্য ২ লাখ ৮০ হাজার টাকা তুলেছিলেন তিনি। কোনো কাজ না করে সেই টাকাও তিনি আত্মসাৎ করেছেন মোশারফ হোসেন।

একইভাবে নিলাম ছাড়াই ফিলিপনগর ইউনিয়নের ইসলামপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের একটি টিনশেড ঘর সাড়ে ৬ লাখ টাকায় বিক্রি করেছেন ওই প্রতিষ্ঠানের প্রধান শিক্ষক গোলাম কিবরিয়া।

অভিযুক্ত শিক্ষক মোশারফ হোসেন জানান, তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ সত্য নয়। বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটি গঠন নিয়ে বিরোধের জেরে মিথ্যা অভিযোগ রটানো হচ্ছে।

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা সাইদা সিদ্দিকা বলেন, এ বিষয়ে লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশনা অনুযায়ী পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

দৌলতপুরের ইউএনও শারমিন আক্তার বলেন, বিষয়টি তদন্ত করে অবশ্যই আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর