বালক বিদ্যালয়ে বালিকার নাম, কে এই বর্ষা? 

ঢাকা, শুক্রবার   ২২ জানুয়ারি ২০২১,   মাঘ ৮ ১৪২৭,   ০৭ জমাদিউস সানি ১৪৪২

বালক বিদ্যালয়ে বালিকার নাম, কে এই বর্ষা? 

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১১:৩৮ ১৪ জানুয়ারি ২০২১  

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

অনলাইনে লটারি প্রক্রিয়ায় ভর্তির ফলাফলে প্রথম শ্রেণীর ভর্তি তালিকায় বর্ষা আক্তার নামে একজন বালিকা ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বালকদের স্কুল অন্নদা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ে ভর্তির সুযোগ পেয়েছে। 

বালক বিদ্যালয়ের তালিকায় বালিকার নাম আসায় অনেকে বর্ষার নামটি ছেলে না মেয়ে এ নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। লটারিতে নাম উঠা বর্ষা আক্তার অন্নদা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রথম শ্রেণিতে মর্নিং শিফটে ভর্তি হওয়ার সুযোগ পেয়েছে।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, গত সোমবার অন্নদা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ে চলতি বছর প্রথম ও ষষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তির জন্য লটারির মাধ্যমে মনোনীত শিক্ষার্থীদের তালিকা প্রকাশ করা হয়। ওই তালিকার ২৩ নম্বরে স্থান পেয়েছে বর্ষা আক্তারের নাম। এছাড়া কয়েকজন শিক্ষার্থীর নাম একাধিকবার উঠেছে তালিকায়। বিষয়টি নিয়ে আলোচনা শুরু হয়েছে। 

জেলায় অন্নদা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের বেশ সুনাম রয়েছে। যে কারণে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হচ্ছে। দেশের অন্যান্য সরকারি বিদ্যালয় গুলোর মতো এ বিদ্যালয়টিতে প্রথম ও ষষ্ঠ শ্রেণিতে শিক্ষার্থীরা ভর্তির জন্য লটারি অনুষ্ঠিত হয়।

অন্নদা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ফরিদা নাজমীন জানান, বর্ষা আক্তারের নামটি আমাদেরও চোখে পড়েছে। আমরা ভর্তি কার্যক্রম শুরুর পর জন্ম সনদ দেখে বলতে পারবো আসল সমস্যা কোন জায়গায়। তবে এটি মেয়ে নাকি ছেলে এ নিয়ে প্রশ্ন উঠার অবকাশ নেই। নামের অংশ হিসেবে মেয়ে বলেই প্রতিয়মান হয়েছে। তবে আমাদের ধারণা, যেহেতেু এক শিক্ষার্থী পাঁচটি স্কুল আবেদন করতে পারে, হয়তো কোনো মেয়ে শিক্ষার্থী ভুল করে অন্নদা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ও নির্বাচন করেছে। 

এছাড়া কম্পিউটারে অনলাইনে প্রথমবারের মতো ভর্তি প্রক্রিয়ার ফরমের মধ্যে জেন্ডার এর ঘরে ভুল হতে পারে। ভর্তি প্রক্রিয়া শুরু হলে বিষয়টি আরো স্পষ্ট হবে। বৃহস্পতিবার ভর্তি কমিটির মিটিং রয়েছে। হয়তো এসব বিষয় নিয়ে আলোচনা হবে। অন্ননদা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়টি ১৮৭৫ সালে প্রতিষ্ঠিত, এটি জেলার প্রাচীন বিদ্যাপীঠ। 

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকে