দুইমাস একসঙ্গে থাকার পর প্রেমিকের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার, প্রেমিকা আটক

ঢাকা, শনিবার   ২৩ জানুয়ারি ২০২১,   মাঘ ১০ ১৪২৭,   ০৮ জমাদিউস সানি ১৪৪২

দুইমাস একসঙ্গে থাকার পর প্রেমিকের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার, প্রেমিকা আটক

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০১:২০ ১৩ জানুয়ারি ২০২১   আপডেট: ০২:২২ ১৩ জানুয়ারি ২০২১

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ভাড়া বাসা থেকে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ভাড়া বাসা থেকে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ভাড়া বাসা থেকে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৯টায় মৌড়াইল কলেজপাড়ার একটি ভাড়া বাসা থেকে তার ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করা হয়। 

নিহত অন্তর চৌধুরী পৌর এলাকার কাউতলী এলাকার কামাল চৌধুরীর ছেলে। এ ঘটনায় পুলিশ অন্তর চৌধুরীর প্রেমিকা জেসমিন আক্তারকে আটক করেছে।

পুলিশ ও জেসমিন আক্তার বলেন, গত তিনমাস আগে কলেজপাড়ার জিলানী চৌধুরীর বাসার নিচতলার একটি ফ্ল্যাট ভাড়া নেয় জেসমিন। সেখানে অন্তর চৌধুরী নিয়মিত আসা যাওয়া করতো। পরে জেসমিনকে বিয়ের আশ্বাস দিয়ে গত দুই মাস ধরে অন্তর সেই বাসাতেই একসাথে বসবাস করতো। 

জেসমিন জানায়, তার বাড়ি সিলেট জেলার গোলাপগঞ্জ উপজেলায়। গত এক বছর আগে তার স্বামীর সাথে ডিভোর্স হওয়ার পর সে কলেজপাড়ার বিভিন্ন বাসায় কাজ করতো। অন্তর চৌধুরীর সাথে পরিচয় হওয়ার পর তারা একে অপরকে ভালোবেসে ফেলেন। অন্তরও তাকে বিয়ের আশ্বাস দেয়। সম্প্রতি অন্তর বন্ধুদের নিয়ে কক্সবাজার যাওয়ার পরিকল্পনা করে। কিন্তু টাকা যোগাড় করতে না পেরে ক্ষোভে দুঃখে নিজের শরীরে ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে হাতের বিভিন্ন অংশ ক্ষত-বিক্ষত করে। এ ঘটনা দেখে জেসমিন তাকে হাওলাত করে টাকা এনে দেয়ার আশ্বাস দেন। আজ রাত ৯টার দিকে জেসমিন হোটেল থেকে খাবার নিয়ে বাসায় গিয়ে দেখেন ঝুলন্ত মরদেহ। পরে তার চিৎকারে এলাকার কয়েকজন যুবক এসে অন্তরকে উদ্ধার করে ব্রাহ্মণবাড়িয়া ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ রইছ উদ্দিন বলেন, অন্তরের লাশ ময়নাতদন্ত করা হবে। ময়না তদন্তের রিপোর্টের পর বিস্তারিত জানা যাবে। তিনি বলেন, জিজ্ঞাসাবাদের জন্য জেসমিন আক্তারকে আটক করা হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডএম