একইভাবে বাবা-ভাইয়ের পর খুন হলেন রুবেল

ঢাকা, মঙ্গলবার   ০৯ মার্চ ২০২১,   ফাল্গুন ২৪ ১৪২৭,   ২৪ রজব ১৪৪২

একইভাবে বাবা-ভাইয়ের পর খুন হলেন রুবেল

ঝালকাঠি প্রতিনিধি  ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৭:১৪ ১০ জানুয়ারি ২০২১  

ছবি : সংগৃহীত

ছবি : সংগৃহীত

ঝালকাঠিতে মো. রুবেল হাওলাদার নামে এক যুবককে ডেকে নিয়ে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। শনিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে জেলার কাঠালিয়া উপজেলার শৌলজালিয়া ইউনিয়নের বলতলা ছয়ঘর গ্রামে বাবুল হাওলাদারের ঘরের একটি কক্ষ থেকে তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

রুবেল বলতলা গ্রামের আ. বারেক খানের ছেলে। এ ঘটনায় বাবুল হাওলাদারের স্ত্রী খাদিজা বেগমকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। 

রুবেলের স্ত্রী রুবী আক্তার বলেন, শনিবার রাত ৯টার দিকে বাবুল হাওলাদার আমার স্বামী রুবেলকে ফোন দিয়ে তার বাড়িতে ডেকে নেয়। রাত সাড়ে ১০টার দিকে লোক মারফত জানতে পারি রুবেলকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। আমি ও আমার আত্মীয়স্বজন বাবুলের বাড়িতে গিয়ে দেখি ঘরের একটি কক্ষে আমার স্বামীর লাশ কম্বল দিয়ে ঢেকে রাখা হয়েছে, তখনও আমার স্বামীর শরীর থেকে রক্ত ঝরছিল।

পরে কাঠালিয়া থানা-পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়।

স্থানীয় শৌলজালিয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মো. মাহমুদ হোসেন রিপন বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ নিয়ে আমি ঘটনাস্থলে গিয়ে বাবুলের বাড়িতে রুবেলের লাশ রক্তাক্ত অবস্থায় দেখতে পাই। এলাকাটি রাজাপুর উপজেলার সীমানাবর্তী হওয়ায় সন্ত্রাসীদের অভয়ারণ্য হিসেবে পরিচিতি। গত চার বছরের মধ্যে এভাবে রুবেলের বাবা আ. বারেক খান ও ভাই রাসেল দুর্বৃত্তদের হাতে খুন হয়েছে। এখন আবার রুবেলকে হত্যা করা হলো। এ হত্যাকাণ্ডের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছি।

রোববার সকালে ঝালকাঠির অ্যাডিশনাল এসপি মো. হাবিবুল্লাহ ও সিনিয়র এএসপি মো. সাখাওয়াত হোসেন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। 

কাঠালিয়া থানার ওসি (তদন্ত) মুরাদ আলী বলেন, রুবেলের বিরুদ্ধে কাঠালিয়া, পিরোজপুর ও ভান্ডারিয়া থানায় অন্তত ১০টি মামলা রয়েছে। এ ঘটনায় পাঁচজনের নামোল্লেখসহ অজ্ঞতনামা কয়েকজনকে আসামি করে রুবেলের মা লুৎফুন্নাহার বেগম বাদী হয়ে কাঠালিয়া থানায় একটি হত্যা মামলা করেছেন। রোববার সকালে ময়নাতদন্তের জন্য লাশ ঝালকাঠি মর্গে পাঠানো হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ