রাস্তা থেকে তুলে নিয়ে স্কুলছাত্রীকে ১ মাস ধরে গণধর্ষণ

ঢাকা, রোববার   ১৭ জানুয়ারি ২০২১,   মাঘ ৩ ১৪২৭,   ০২ জমাদিউস সানি ১৪৪২

রাস্তা থেকে তুলে নিয়ে স্কুলছাত্রীকে ১ মাস ধরে গণধর্ষণ

শাহজাদপুর (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৮:৫৫ ২ ডিসেম্বর ২০২০  

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর উপজেলায় ১৪ বছর বয়সী এক চর্তুথ শ্রেণির ছাত্রীকে রাস্তা থেকে তুলে নিয়ে ১ মাস ধরে গণধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। 

বুধবার দুপুরে উপজেলার পোরজনা ইউপির পোরজনা গুচ্ছগ্রামের ধর্ষক ইউসুফ আলীকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে এলাকাবাসী। 

ইউসুফ ওই গ্রামের আলহাজ আলীর ছেলে। এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত একই গ্রামের মিন্টু প্রামাণিকের ছেলে জীবন ও মানিক হোসেনের ছেলে ফয়সালকে পুলিশ গ্রেফতারের চেষ্টা করছে।

নির্যাতিতা মেয়ের পরিবার জানায়, গত ১ মাস আগে স্কুলে যাওয়ার সময় ইউসুফ, জীবন ও ফয়সাল মেয়েটিকে রাস্তা থেকে তুলে নিয়ে ফয়সালের নির্জন বাড়ির একটি ঘরে ৩ জন মিলে গণধর্ষণ করে। এ সময় ইউসুফের মোবাইল ফোনে ফয়সাল এ ধর্ষণের চিত্র ভিডিও ধারণ করে। এরপর ওই ভিডিও ফেসবুকে ছড়িয়ে দেয়ার ভয় দেখিয়ে এ ৩ জন ১ মাস ধরে প্রতিদিন রাতে মেয়েটিকে ডেকে নিয়ে তারা ধর্ষণ করে। মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে মেয়েটিকে ধর্ষণের উদ্দেশ্যে টেনে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। এ সময় মেয়েটির চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে ইউসুফকে হাতেনাতে আটক করে। লোকজনের উপস্থিতি টের পেয়ে ফয়সাল ও জীবন দৌঁড়ে পালিয়ে যায়।

শাহজাদপুর থানার এসআই আবুল হোসেন ও এসআই মেহেদী হাসান বলেন, বিষয়টির তদন্ত চলছে। এ ছাড়া অপর আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। এ ঘটনায় মেয়ের বাবা বাদী হয়ে শাহজাদপুর থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

এদিকে এ ধর্ষণের ঘটনা এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে এলাকাবাসী ও স্কুলের শিক্ষার্থীরা ধর্ষকদের দ্রুত গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকে