ঝালকাঠিতে কর্মী হারিয়ে দুর্বল হয়ে পড়ছে জাপা

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২১ জানুয়ারি ২০২১,   মাঘ ৮ ১৪২৭,   ০৬ জমাদিউস সানি ১৪৪২

ঝালকাঠিতে কর্মী হারিয়ে দুর্বল হয়ে পড়ছে জাপা

ঝালকাঠি প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৮:৩৯ ২৫ নভেম্বর ২০২০   আপডেট: ২০:১৭ ১২ ডিসেম্বর ২০২০

ফাইল ফটো

ফাইল ফটো

জেলা আহ্বায়ক কমিটি হওয়ার পর চার বছরেও হয়নি পূর্ণাঙ্গ কমিটি। পূর্ণাঙ্গ কমিটি না হওয়ায় দলের অনেক ত্যাগী ও পুরাতন নেতাকর্মীদের পদ-পদবি না থাকায় দলীয় কার্যক্রমে কেউ অংশ নিচ্ছেন না। দিন দিন কর্মী হারাচ্ছে দলটি। এভাবেই ঝালকাঠিতে কর্মী হারিয়ে দুর্বল হয়ে পড়ছে জাতীয় পার্টি (জাপা)। এসব তথ্য জানান ঝালকাঠি জাতীয় পার্টির তৃণমূল পর্যায়ের নেতাকর্মীরা।

তারা আরো জানান, দুঃসময়ে নেতাদের পাশে না পেয়ে দল থেকে সরে দাঁড়িয়েছে অনেক কর্মী। জেলা জাতীয় পার্টির সিনিয়র নেতারা কর্মীদের পাশে থাকছেন না। এতে তৃণমূলের কর্মীদের ক্ষোভ বাড়ছে। কেউ কেউ দলের ওপর আস্থা হারিয়ে নিষ্ক্রিয় হয়েছেন। এ কারণে কর্মীদের পাশাপাশি জেলার সাধারণ মানুষের সমর্থনও হারাচ্ছে জাতীয় পার্টি।

নেতাকর্মীরা বলেন, রাজনীতির মাঠে টিকে থাকতে হলে জাতীয় পার্টিকে মানুষের সঙ্গে মিশতে হবে। শুধু নির্বাচনের সময় দুয়ারে দুয়ারে গেলে হবে না। দুঃসময়ে অসহায় মানুষের পাশে থাকতে হবে। কিন্তু ঝালকাঠিতে জাতীয় পার্টির সে অবস্থান নেই। ব্যক্তিস্বার্থে কয়েকজন নেতা ঝালকাঠি জাতীয় পার্টিকে ব্যবহার করছেন। এ কারণে ত্যাগী কর্মীরাও আর দলের প্রয়োজনে এগিয়ে আসে না।

জেলা জাতীয় পার্টির সদস্য সচিব মাহবুবুর রহমান বলেন, আপাতত আমাদের দলীয় কোনো কর্মসূচি নেই। কেন্দ্র ঘোষিত কর্মসূচি যথাযথভাবেই পালন করা হচ্ছে। করোনায় ক্ষতিগ্রস্তদের পাশে ছিলাম এবং আছি। সবসময় নেতাকর্মীদের জন্য সাধ্যমতো কিছু করার চেষ্টা করে যাচ্ছি।

ঝালকাঠি জাতীয় পার্টির আহ্বায়ক আনোয়ার হোসেন আনু বলেন, আহ্বায়ক কমিটি গঠনের পরে আমরা একাধিকবার প্রস্তুতি নিয়েছি সম্মেলন করে পূর্ণাঙ্গ কমিটি করার। প্রতিকূল পরিবেশের জন্য তা আর সম্ভব হয়নি। দলীয় কার্যক্রম নেতাকর্মীদের নিয়েই পরিচালনা করা হচ্ছে। নেতাকর্মীসহ সাধারণ মানুষের পাশে থাকার সাধ্যমতো চেষ্টা করছি।

২০১৬ সালের অক্টোবর মাসে জেলা জাতীয় পার্টির আহ্বায়ক কমিটি গঠন করা হয়। এতে বিদায়ী কমিটির সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট আনোয়ার হোসেন আনুকে আহ্বায়ক, অ্যাডভোকেট আব্দুল আলীম ও আনোয়ার হোসেন তালুকদারকে যুগ্ম আহ্বায়ক এবং বিদায়ী কমিটির সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুর রহমানকে সদস্য সচিব করা হয়।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ/এইচএন/জেডএম