কড়া নাড়ল সাবেক স্বামী, দরজা খুলতে মুখে অ্যাসিড নিক্ষেপ

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২১ জানুয়ারি ২০২১,   মাঘ ৭ ১৪২৭,   ০৬ জমাদিউস সানি ১৪৪২

কড়া নাড়ল সাবেক স্বামী, দরজা খুলতে মুখে অ্যাসিড নিক্ষেপ

নাটোর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০৭:৪৬ ২৪ নভেম্বর ২০২০  

ছবি : সংগৃহীত

ছবি : সংগৃহীত

নাটোরে স্বামীকে তালাক দেয়ার জেরে নার্গিস আক্তার নুপুর নামে এক নারীকে অ্যাসিডে ঝলসে দেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। গুরুতর অবস্থায় ওই নারীকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেলে পাঠানো হয়েছে।

সোমবার সন্ধ্যায় বড়াইগ্রাম উপজেলার কমরদহ গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

স্বজনরা জানান, সোমবার সন্ধ্যায় বড়াইগ্রাম উপজেলার কমরদহ গ্রামে নার্গিস আক্তার নুপুরকে লক্ষ্য করে অ্যাসিড ছুড়ে পালিয়ে যায় সাবেক স্বামী তালেব। তাৎক্ষণিকভাবে তাকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে নিয়ে যান স্বজনরা। অবস্থায় গুরুতর হওয়ায় প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে তাকে ঢাকা মেডিকেলে নেয়ার পরামর্শ দেন চিকিৎসক। ৭ বছর আগে তালেবের সঙ্গে বিয়ে হয় নুপুরের। সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের জন্য তালেবের বিরুদ্ধে ৭টি মামলা থাকায় সম্প্রতি তাকে তালাক দেয় নুপুর। এরই জেরে তাকে অ্যাসিডে ঝলসে দিয়েছে বলে অভিযোগ স্বজনদের।

নুপুরের বাবা তায়েজ উদ্দিনের দাবি, আবু তালেব সাত বছর আগে জোর করে বিয়ে করে তার মেয়ে নুপুরকে। একাধিক গ্রেফতারি পরোয়ানা নিয়ে তালেব আত্মগোপনে চলে গেলে সে সুযোগে সম্প্রতি নুপুর তালেবকে তালাক দিয়ে বাবার বাড়ি চলে আসে। বিষয়টি জানতে পেয়ে সোমবার রাত সাড়ে ৭টার দিকে তালেব ওই বাড়িতে গিয়ে দরজায় কড়া নাড়লে নুপুর দরজা খোলার সঙ্গে সঙ্গে তার মুখে অ্যাসিড মেরে পালিয়ে যায় তালেব।

নাটোর সদর হাসপাতালের মেডিকেল অফিসার ডা. মাহফুজুল হক বলেন, 'নার্গিস আক্তারের মুখের নিচের অংশ এবং চোখের কিছু জায়গা অ্যাসিডে দগ্ধ হয়েছে। আমরা প্রাথমিক চিকিৎসা যেটুকু দেয়া হয় সেটুকুই দিয়েছি। প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে মেডিকেল কলেজে রেফার্ড করেছি।'

বড়াইগ্রাম থানার ওসি আনোয়ারুল ইসলাম জানান, খবর পেয়ে বড়াইগ্রাম থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে। তবে এই ঘটনায় এখনো থানায় কোন মামলা হয়নি।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ