‘জীবিত’ হতে ঢাকায় আসতে হবে ফজিলাতুন নেসাকে

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২১ জানুয়ারি ২০২১,   মাঘ ৭ ১৪২৭,   ০৬ জমাদিউস সানি ১৪৪২

‘জীবিত’ হতে ঢাকায় আসতে হবে ফজিলাতুন নেসাকে

মুন্সিগঞ্জ প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২১:৪৩ ২৩ নভেম্বর ২০২০   আপডেট: ১৯:৫৪ ১২ ডিসেম্বর ২০২০

ঢাকায় এসে ‘জীবিত’ হতে হবে ফজিলাতুন নেসাকে। ছবি: সংগৃহীত

ঢাকায় এসে ‘জীবিত’ হতে হবে ফজিলাতুন নেসাকে। ছবি: সংগৃহীত

মুন্সীগঞ্জের গজারিয়ার ভবেরচর ইউনিয়নের আনারপুরা গ্রামের বাসিন্দা ফজিলাতুন নেসা (৮০) জীবিত থেকেও জাতীয় পরিচয়পত্র ও ভোটার তালিকায় তিনি ‘মৃত’। অসুস্থতার কারণে শয্যাশায়ী এ নারীকে সংশোধনের কারণে ঢাকায় আসতে হবে।

জানা গেছে, জাতীয় পরিচয়পত্র ও ভোটার তালিকায় ২০১১ সালের ২০ জুলাই তাকে ‘মৃত’ হিসেবে তালিকাভুক্ত করা হয়। ফজিলাতুন নেসার জাতীয় পরিচয়পত্রে জন্ম তারিখ উল্লেখ করা আছে ৫ জুলাই ১৯৪০।

গত অনেক বছর যাবতই তিনি নিয়মিত বয়স্ক ভাতা পেতেন। তবে সম্প্রতি বয়স্ক ভাতা কার্যক্রম অনলাইনে করতে গিয়ে দেখেন তিনি সরকারি নথিতে ‘মৃত্যুবরণ’ করেছেন। ফলে বন্ধ হয়ে গেছে তার বয়স্ক-ভাতা।

গজারিয়া উপজেলা নির্বাচন কার্যালয় থেকে বলা হয়েছে, ঢাকায় নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ে উপস্থিত হয়ে সংশোধনের আবেদন করে তাকে ‘জীবিত’ হতে হবে।

এ প্রসঙ্গে ফজিলাতুন নেসা বলেন, আমার কোনো ছেলে নেই। তাই মেয়ের কাছে থাকি। আমার বয়স্ক ভাতা বন্ধের কারণে আর্থিক সংকটে পড়েছি। সরকারি নথিতে ‘মৃত’ হওয়ায় স্বামী ও বাবার কাছ থেকে পাওয়া সামান্য জমিও আমি হস্তান্তর করতে পারছি না।

ভবেরচর ইউনিয়ন পরিষদের সচিব মোকারম হোসেন জানান, কীভাবে তিনি ভোটার তালিকা নম্বর ও জাতীয় পরিচয়পত্রে মৃত হিসেবে উপস্থাপিত হলেন তা আমরা জানিনা।

ডেইলি বাংলাদেশ/এনকে/জেডএম