বাড়িতে কেউ না থাকায় ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রী

ঢাকা, বুধবার   ২০ জানুয়ারি ২০২১,   মাঘ ৭ ১৪২৭,   ০৫ জমাদিউস সানি ১৪৪২

বাড়িতে কেউ না থাকায় ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রী

চাঁদপুর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২১:৩৩ ১২ নভেম্বর ২০২০   আপডেট: ২১:৪২ ১২ নভেম্বর ২০২০

ধর্ষক জাকির হোসেন ব্যাপারী

ধর্ষক জাকির হোসেন ব্যাপারী

চাঁদপুরে ধর্ষণের শিকার হয়ে চতুর্থ শ্রেণির এক ছাত্রী অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার অভিযোগে জাকির হোসেন ব্যাপারী নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

বুধবার রাতে সদর উপজেলার রঘুনাথপুর গ্রামে অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

জানা যায়, কয়েক বছর আগে ওই ছাত্রীর মা দুই সন্তান রেখে বাবার বাড়ি চলে যায়। বাবা নারায়ণগঞ্জে কাঁচামালের ব্যবসা করেন। বাড়িতে কেউ না থাকায় ধর্ষক জাকির হোসেন রাতে বাড়িতে ঢুকে বেশ কয়েকদিন ওই ছাত্রীকে ধর্ষণ করে। দুই মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়লে ওই ছাত্রী তার পরিবারকে জানায়। এরপর গত বুধবার দুপুরে ওই ছাত্রীকে চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে গাইনি বিভাগে ভর্তি করা হয়।

এর আগে, ঘটনাটি জানাজানি হলে ধর্ষক জাকির হোসেন ব্যাপারী ৪০ হাজার টাকায় ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা করে। স্কুলছাত্রীর বাবা এতে রাজি না হওয়ায় তার পরিবারকে বিভিন্ন ধরনের হুমকি দেয়া হয় বলেও জানান ভুক্তভোগীর পরিবার।

ধর্ষিতার বাবা জানান, বাড়িতে একা পেয়ে ঘরে ঢুকে মেয়েকে ধর্ষণ করেছে জাকির। সে টাকার বিনিময়ে সমঝোতা করতে চায়। এতে রাজি না হওয়ায় তারা হত্যার হুমকি দেয়।

চাঁদপুর মডেল থানার ওসি মো. নাসিম জানান, এরই মধ্যে আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়ার পর ওই ছাত্রীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকে