‘আহসান উল্লাহ মাস্টারের আদর্শের কর্মীরা বেইমানি করবে না’

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৮ জানুয়ারি ২০২১,   মাঘ ১৪ ১৪২৭,   ১৩ জমাদিউস সানি ১৪৪২

‘আহসান উল্লাহ মাস্টারের আদর্শের কর্মীরা বেইমানি করবে না’

গাজীপুর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২১:১৩ ৯ নভেম্বর ২০২০  

শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টারের ৭০তম জন্মদিন উপলক্ষে আয়োজিত স্মরণসভায় বক্তব্য দেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল

শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টারের ৭০তম জন্মদিন উপলক্ষে আয়োজিত স্মরণসভায় বক্তব্য দেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল

যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল বলেছেন, শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টারের আদর্শের কর্মীরা দলের সঙ্গে কখনো বেইমানি করবে না। 

সোমবার বিকেলে গাজীপুরের চেরাগআলীতে শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টারের ৭০তম জন্মদিন উপলক্ষে এক স্মরণসভায় এ কথা বলেন তার ছেলে ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী রাসেল। এ সময় বাবার আত্মার মাগফিরাত কামনায় দেশবাসীর কাছে দোয়া কামনা করেন তিনি।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টারকে হত্যার মাধ্যমে বিএনপি-জামাত সরকারের ঘাতকরা ভেবেছিলো গাজীপুর থেকে আওয়ামী লীগকে নিশ্চিহ্ন করে ফেলবে। কিন্তু তারা বুঝতে পারেনি প্রতিটি ঘরে একজন আহসান উল্লাহ মাস্টারের আদর্শের কর্মী জন্ম নিয়েছে।

তিনি বলেন, ৯৬ সালের নির্বাচনে শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার বিজয়ী হয়ে গাজীপুরকে আওয়ামী লীগের ঘাটি হিসেবে গড়ে তুলেছেন। এই ঘাটিকে দয়া করে বিরোধে জড়িয়ে কেউ নষ্ট করবেন না। আলোচনার মাধ্যমে আমরা সব সমস্যার সমাধান করবো।

টঙ্গী থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুল হকের সভাপতিত্বে সভায় আরো বক্তব্য রাখেন- মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও আহসান উল্লাহ মাস্টারের ভাই মতিউর রহমান মতি, সাংগঠনিক সম্পাদক অধ্যক্ষ মহিউদ্দিন মহি, মহানগর যুবলীগের আহ্বায়ক রাসেল সরকার,কাউন্সিলর গিয়াস উদ্দিন সরকার প্রমুখ।

উল্লেখ্য, ১৯৫০ সালের ৯ নভেম্বর গাজীপুর মহানগরীর হায়দরাবাদে গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন প্রখ্যাত শ্রমিক নেতা ও গাজীপুর-২ আসনের এমপি বীর মুক্তিযোদ্ধা শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার। ২০০৪ সালের ৭মে টঙ্গীর নোয়াগাঁও এমএ মজিদ মিয়া উচ্চবিদ্যালয় মাঠে এক জনসভায় তাকে গুলি করে হত্যা করে সন্ত্রাসীরা।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএইচ