ফোনে ডেকে নিয়ে যুবককে কুপিয়ে জখম, দ্বিতীয় স্ত্রী আটক

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৬ নভেম্বর ২০২০,   অগ্রহায়ণ ১৩ ১৪২৭,   ০৯ রবিউস সানি ১৪৪২

ফোনে ডেকে নিয়ে যুবককে কুপিয়ে জখম, দ্বিতীয় স্ত্রী আটক

ফরিদপুর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০২:১৭ ২৪ অক্টোবর ২০২০   আপডেট: ০২:২০ ২৪ অক্টোবর ২০২০

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

ফরিদপুরের বোয়ালমারীতে কাজ দেয়ার নাম করে ফোনে ডেকে নিয়ে সামাদ শেখ নামে এক যুবককে কুপিয়ে জখম করেছে এক দুর্বৃত্ত। এ ঘটনায় সামাদ শেখের দ্বিতীয় স্ত্রীকে আটক করেছে পুলিশ।

আহত সামাদ শেখ উপজেলার শেখর ইউপির দুর্গাপুর গ্রামের সাঈদ শেখের ছেলে। শুক্রবার রাতে উপজেলার সাতৈর-ডোবরা সড়কের মোহনপুর ব্রিজ সংলগ্ন এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। 

সামাদ শেখের তৃতীয় স্ত্রী মঞ্জিলা বেগম জানান, গত কয়েকদিন কর্মহীন সামাদকে কাজে নেয়ার কথা বলে এক ব্যক্তি অপরিচিত ফোন নম্বর থেকে ফোন দিচ্ছিল। সেই সুবাদে সামাদ শুক্রবার বিকেলে ফরিদপুর ওই ব্যক্তির সঙ্গে দেখা করার উদ্দেশে বাড়ি থেকে বের হয়। এরপর স্বামীর আহতের খোঁজ পেয়ে তিনি হাসপাতালে ছুটে যান। 

বোয়ালমারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন সামাদ জানান, ফরিদপুরের রাজবাড়ী রাস্তার মোড়ে এক ব্যক্তির সঙ্গে দেখা হলে মোটরসাইকেল যোগে তাকে বোয়ালমারী পৌঁছে দেয়ার কথা বলে নিয়ে যায়। সাতৈর-ডোবরা সড়কের মোহনপুর ব্রিজের কাছাকাছি নির্জন স্থানে মোটরসাইকেল থামিয়ে হঠাৎ তাকে কুপিয়ে সঙ্গে থাকা মোবাইল ফোন, নগদ টাকা ছিনিয়ে নেয় ওই দুর্বৃত্ত। 

ওই এলাকার লোকজন তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

বোয়ালমারী থানার এসআই সাইফুদ্দিন জানান, ঘটনাস্থল থেকে একটা বাজার করা ব্যাগ ও সামাদকে কুপিয়ে জখমে ব্যবহৃত দা উদ্ধার করা হয়েছে। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সামাদের দ্বিতীয় স্ত্রী জিন্নাত আরা ও ভায়রা বিটুল শেখকে থানায় আনা হয়েছে। তদন্তপূর্বক আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকে