সংসারের হাল ধরতে এসে চাচার ধর্ষণের শিকার ভাতিজি

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৯ অক্টোবর ২০২০,   কার্তিক ১৫ ১৪২৭,   ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

সংসারের হাল ধরতে এসে চাচার ধর্ষণের শিকার ভাতিজি

বিশ্বনাথ (সিলেট) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৮:১৭ ১৭ অক্টোবর ২০২০   আপডেট: ১৮:২৭ ১৭ অক্টোবর ২০২০

গ্রেফতার চাচা  আব্দুর রশিদ

গ্রেফতার চাচা আব্দুর রশিদ

সিলেটের বিশ্বনাথে আপন ভাতিজিকে ধর্ষণের অভিযোগে আব্দুর রশিদ নামে এক ধর্ষককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। সে গোলাপগঞ্জ থানার ফুলবাড়ী (দক্ষিণ পাড়া) গ্রামের মনফর আলীর ছেলে। নির্যাতিত ওই কিশোরী বাদী হয়ে শুক্রবার রাতে থানায় অভিযোগ করলে পুলিশ রাতেই তাকে গ্রেফতার করে।

মামলা সূত্রে জানা যায়, অভিযুক্ত আব্দুর রশিদ ধর্ষিতার আপন চাচা হন। মেয়েটির বাবা মারা যাওয়ার পর তাকে অভাবের সংসারে হাল ধরতে প্রায় দুই বছর আগে টেইলারিংয়ের কাজ শেখানোর জন্যে বিশ্বনাথে নিয়ে আসেন তার ফুফু। চাচা আব্দুর রশিদের স্ত্রী ডির্ভোস হওয়ার পর সেও বিশ্বনাথে ভাড়াটিয়া বাসা নিয়ে থাকত। সেই সুবাদে ভাতিজির সঙ্গে আব্দুর রশিদের সম্পর্ক গড়ে উঠে।

শুক্রবার রাতে আব্দুর রশিদ তার বোনের বাড়ি উপজেলার হরিকলস গ্রামে রাত যাপনের উদ্দেশে যায় এবং সেখানে খাওয়া ধাওয়া শেষে ভাতিজির সঙ্গে কথা আছে বলে তার রুমে ডেকে নেয়। দীর্ঘক্ষণ রুম থেকে বের না হওয়ায় সন্দেহ হয় মরিয়ম বেগমের। তিনি আব্দুর রশিদের দরজায় ডাক দিলে মেয়েটি বিবস্ত্র অবস্থায় এসে ফুফুকে বিস্তারিত খুলে বলেন।

পরে বিষয়টি থানা পুলিশকে অবগত করলে পুলিশ রাতেই তাকে গ্রেফতার করে।

এ বিষয়ে বিশ্বনাথ থানার ওসি শামীম মূসা জানান, ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়েছে এবং মেয়েটিকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ