স্বপ্ন বন্দি পানিতে

ঢাকা, শনিবার   ২৪ অক্টোবর ২০২০,   কার্তিক ৯ ১৪২৭,   ০৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

স্বপ্ন বন্দি পানিতে

আখাউড়া (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১০:৫৫ ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০  

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ায় বৃষ্টির পানিতে তলিয়ে গেছে নিচু এলাকার রোপা আমন ধান

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ায় বৃষ্টির পানিতে তলিয়ে গেছে নিচু এলাকার রোপা আমন ধান

ভালো ফলনের স্বপ্ন নিয়ে প্রায় ১১০ হেক্টর জমিতে রোপা আমন ধান চাষ করেছেন ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ার কৃষকরা। কিন্তু কয়েক দিনের বৃষ্টিতে নদী, খাল-বিল ও নিচু এলাকায় পানি বাড়তে শুরু করেছে। এতে তলিয়ে গেছে সব জমির ধান। পানিবন্দি হয়ে পড়েছে কৃষকদের স্বপ্ন। দ্রুত পানি না সরলে ফসল নষ্ট হয়ে যাবে। এ নিয়ে চিন্তিত ওই উপজেলার শতাধিক কৃষক।

জানা গেছে, কালবৈশাখী ঝড়, পোকার আক্রমণসহ নানা কারণে গত মৌসুমে বোরো ধানের কাঙ্ক্ষিত ফলন হয়নি। সেই ক্ষতি পুষিয়ে নিতে নতুন করে রোপা আমন চাষ করেছেন আখাউড়ার কৃষকরা। কিন্তু টানা কয়েক দিনের বৃষ্টিতে পানিবন্দি হয়ে পড়েছে তাদের স্বপ্ন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ায় বৃষ্টির পানিতে তলিয়ে গেছে নিচু এলাকার রোপা আমন ধান

ধরখার এলাকার মো. আলী আজগর মিয়া বলেন, বোরো মৌসুমে কালবৈশাখী ঝড় ও পোকার কারণে ধানের ক্ষতি হয়। বিঘায় ৫-৬ মণের বেশি ধান পাওয়া যায়নি। বাজারে ভালো দাম থাকলেও ফলন না পাওয়ায় অনেক লোকসান হয়েছে। সেই ক্ষতি পুষিয়ে নিতেই এবার ১০ বিঘা জমিতে আমন আবাদ করেছিলাম। কিন্তু টানা বৃষ্টিতে চার বিঘা জমির ধান পানিতে তলিয়ে গেছে। দ্রুত পানি না সরলে আমার সব শেষ হয়ে যাবে।

এদিকে উপজেলা কৃষি অফিস জানিয়েছে, বৃষ্টির কারণে পানি বৃদ্ধি পেয়েছে তাই আমন ধান নিয়ে শঙ্কার কিছু নেই। বৃষ্টির পানি দ্রুত নেমে গেলে ফসলের কোনো ক্ষতি হবে না।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শাহানা বেগম বলেন, আখাউড়ায় চলতি মৌসুমে আমন আবাদের লক্ষ্যমাত্রা প্রায় চার হাজার হেক্টর। এরমধ্যে কয়েকদিনের বৃষ্টিতে মোগড়া, মনিয়ন্দ, ধরখার ইউপির প্রায় ১১০ হেক্টর ধান পানিতে ডুবলেও তেমন কোনো ক্ষতি হয়নি। বৃষ্টি কমলে দুই দিনের মধ্যে পানি সরে যাবে। কৃষকদের সার্বিক সহযোগিতা ও পরামর্শ দেয়া হচ্ছে। শেষ পযর্ন্ত আবহাওয়া অনুকূলে থাকলে লক্ষ্যমাত্রা অর্জন সম্ভব।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর