টাঙ্গাইলে শিশুর শ্লীলতাহানির পর মা-ফুপুকে পেটালো প্রতিবেশী

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২২ অক্টোবর ২০২০,   কার্তিক ৮ ১৪২৭,   ০৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

টাঙ্গাইলে শিশুর শ্লীলতাহানির পর মা-ফুপুকে পেটালো প্রতিবেশী

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৬:৫৫ ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০  

গ্রেফতার তোতা মিয়া

গ্রেফতার তোতা মিয়া

টাঙ্গাইলের গোপালপুরে চার বছর ব্য়সী এক শিশুর শ্লীলতাহানির পর তার মা ও ফুপুকে পেটানোর অভিযোগ উঠেছে এক প্রতিবেশীর বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় তোতা মিয়া নামে ওই প্রতিবেশীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সোমবার দুপুরে ওই উপজেলার ধোপাকান্দি ইউপির গাড়ালিয়া পাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। অভিযুক্ত তোতা মিয়া ওই আব্দুল হামিদের ছেলে ও তিন সন্তানের জনক।

ধোপাকান্দি ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল হাই জানান, গাড়ালিয়া পাড়ার এক প্রবাসীর চার বছর বয়সী মেয়েকে বাড়ির পাশের জঙ্গলে নিয়ে শ্লীলতাহানি করেন তোতা মিয়া। ওই সময় শিশুটির কান্নায় প্রতিবেশীরা ছুটে এলে তোতা মিয়া পালিয়ে যান। পরে তাকে বাড়ি থেকে ডেকে আনা হয়। এ নিয়ে বাকবিতণ্ডার এক পর্যায়ে তিনি লাঠি নিয়ে শিশুটির মা-ফুপুর ওপর হামলা চালান। লাঠির আঘাতে শিশুটির ফুপু আজিরন বেগমের মাথা ফেটে যায়। আহত হন শিশুর মা রমিছা বেগমও। শিশুসহ তিনজনই উপজেলা হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

গোপালপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. আলীম আল রাজী জানান, একজন গাইনি ডাক্তার দিয়ে শিশুটির চেকআপ করানো হয়েছে। তাতে যৌন নির্যাতনের আলামত মিলেছে।

গোপালপুর থানার ওসি (তদন্ত) কাইয়ুম খান জানান, এ ঘটনায় ওই শিশুর দাদি জরিনা বেগম মামলা করেছেন। ঘটনার দুই ঘণ্টার মধ্যে অভিযান চালিয়ে তোতা মিয়াকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর