বিয়ের প্রলোভনে তরুণীকে নির্মাণাধীন ভবনে নিয়ে ধর্ষণ, গ্রেফতার ৬

ঢাকা, বুধবার   ২৮ অক্টোবর ২০২০,   কার্তিক ১৩ ১৪২৭,   ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

বিয়ের প্রলোভনে তরুণীকে নির্মাণাধীন ভবনে নিয়ে ধর্ষণ, গ্রেফতার ৬

সাভার (ঢাকা) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২০:২২ ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০  

ধর্ষণের ঘটনায় গ্রেফতার ব্যক্তিরা

ধর্ষণের ঘটনায় গ্রেফতার ব্যক্তিরা

সাভারে বিয়ের প্রলোভনে এক তরুণীকে ডেকে নিয়ে ধর্ষণের অভিযোগে তার প্রেমিকসহ ছয়জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। সোমবার দুপুরে গ্রেফতার আসামিদের আদালতে পাঠায় সাভার মডেল থানা পুলিশ।

এর আগে রোববার রাতে উপজেলার হেমায়েতপুর নতুনপাড়া এলাকার একটি নির্মাণাধীন ভবনের তৃতীয় তলায় ধর্ষণের এ ঘটনা ঘটে। 

গ্রেফতাররা হলেন, ফরিদপুর জেলার ভাঙ্গা থানার বিষ্ণপুর গ্রামের মতিউর রহমানের ছেলে সাকিবুর রহমান রিফাত, চাঁপাইনববাগঞ্জ জেলার গোমস্তাপুর থানার মিনি বাজার গ্রামের মমিন মিয়ার ছেলে মো. বাবু, একই থানার বমপুর গ্রামের তহুরুল ইসলামের ছেলে ইউসুফ আলী, একই জেলার ভোলাহাট থানার পীরগাছি বাজার এলাকার মহিবুল হকের ছেলে সোহেল রানা, একই থানার বারইপাড়া গ্রামের মজিবুর রহমানের ছেলে মাইনুল ইসলাল ও সদর থানার নামেরাই হাজীপাড়া গ্রামের নুরুল হুদার ছেলে মোকারম মিয়া।

পুলিশ জানায়, বেশ কিছুদিন ধরে মোবাইলের মাধ্যমে ভুক্তভোগী তরুণীর সঙ্গে অভিযুক্ত ধর্ষক সাকিবুর রহমান রিফাতের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। সেই সূত্র ধরে রোববার বিকেলে সাভারের হেমায়েতপুর এলাকায় প্রেমিকাকে ডেকে নিয়ে আসেন রিফাত। পরবর্তীতে তাকে বিভিন্ন স্থানে ঘুরিয়ে রাতে হেমায়েতপুর নতুনপাড়া এলাকায় একটি নির্মাণাধীন ভবনে নিয়ে যান। সেখানে তার বন্ধুদের সহায়তায় ওই তরুণীকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করেন সাকিবুর রহমান রিফাত। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ভুক্তভোগী তরুণীকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ানস্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে পাঠায়। পরে এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ওই তরুণীর প্রেমিক ও তার পাঁচ সহযোগীকে গ্রেফতার করা হয়। 

সাভার মডেল থানার পুলিশ পরিদর্শক (অপারেশন অ্যান্ড কমিউনিটি পুলিশ) মোহাম্মদ আল-আমিন তালুকদার বলেন, এ ঘটনায় ধর্ষক ও তার পাঁচ সহযোগীসহ ছয়জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। পরে তাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে সোমবার দুপুরে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএম