চাকরির কথা বলে দুই তরুণীকে হোটেলে আটকে দেহ ব্যবসা

ঢাকা, শুক্রবার   ৩০ অক্টোবর ২০২০,   কার্তিক ১৫ ১৪২৭,   ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

চাকরির কথা বলে দুই তরুণীকে হোটেলে আটকে দেহ ব্যবসা

বরিশাল প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৮:৫৪ ৩ আগস্ট ২০২০  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

বরিশালে চাকরি দেয়ার কথা বলে একটি আবাসিক হোটেলে আটকে রেখে দুই তরুণীকে দেহ ব্যবসা বাধ্য করার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় হোটেলের তিন কর্মচারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এ সময় দুই তরুণীকে উদ্ধার করা হয়েছে।

রোববার রাতে নগরীর দক্ষিণ চকবাজার এলাকার পায়েল নামে একটি হোটেলে এ অভিযান চালান মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) সদস্যরা। এ ঘটনায় সোমবার সকালে হোটেল পায়েলের মালিক ও তিন কর্মচারীসহ কয়েকজনকে আসামি করে কোতোয়ালি থানায় মামলা করা হয়েছে।


অভিযানে উদ্ধার এক তরুণীর বাড়ি ঝালকাঠি এবং আরেক তরুণীর বাড়ি বরগুনায়। গ্রেফতাররা হলেন, মো. সেলিম চৌকিদার, মো. আনোয়ার হোসেন ও মো. বেলাল গাজী। তারা হোটেল পায়েলের কর্মচারী।

মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) সহকারী কমিশনার মো. রবিউল ইসলাম শামীম বলেন, চাকরি দেয়ার কথা বলে দুই তরুণীকে হোটেল পায়েলে আটকে রেখে যৌন ব্যবসায় বাধ্য করা হয়েছে, এমন খবর পেয়ে রোববার রাতে অভিযান চালানো হয়। এ সময় দুই তরুণীকে উদ্ধার করা হয়। সে সঙ্গে তিন কর্মচারীকে গ্রেফতার করা হয়।

রবিউল ইসলাম বলেন, উদ্ধারের পর দুই তরুণী পুলিশকে জানান, ভালো বেতনে অফিসে চাকরির কথা বলে তাদের হোটেলে এনে দেহ ব্যবসায় বাধ্য করা হয়। মাসখানেক ধরে তাদের হোটেলে আটকে রাখা হয়েছে। তাদের দিয়ে দেহ ব্যবসা করিয়ে টাকা উপার্জন করেছেন হোটেল মালিক। তারা কয়েকবার পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেছেন। তবে হোটেলের লোকজন দিনরাত তাদের পাহারায় থাকেন। সে কারণে পালাতে ব্যর্থ হন তারা।

সহকারী পুলিশ কমিশনার রবিউল ইসলাম আরো বলেন, হোটেলে দেহ ব্যবসার সঙ্গে কয়েকজন জড়িত। তাদের খুঁজে বের করার চেষ্টা চলছে। দুই তরুণীকে আটকে রেখে দেহ ব্যবসায় বাধ্য করায় মামলা হয়েছে। গ্রেফতার তিন কর্মচারীকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ