এমএলএম কোম্পানির নামে ১৭ হাজার কোটি টাকা আত্মসাৎ করেন রাগীব

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২১ অক্টোবর ২০২১,   কার্তিক ৭ ১৪২৮,   ১৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

এমএলএম কোম্পানির নামে ১৭ হাজার কোটি টাকা আত্মসাৎ করেন রাগীব

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২১:১৪ ১০ সেপ্টেম্বর ২০২১  

গ্রেফতার রাগীব আহসান ও তার ভাই আবুল বাশার। ছবি: সংগৃহীত

গ্রেফতার রাগীব আহসান ও তার ভাই আবুল বাশার। ছবি: সংগৃহীত

সুদমুক্ত বিনিয়োগের কথা বলে মাল্টি লেভেল মার্কেটিং (এমএলএম) কোম্পানির নামে ১৭ হাজার কোটি টাকা আত্মসাৎ করেছেন র‍্যাবের হাতে গ্রেফতার হওয়া রাগীব আহসান ও তার ভাই আবুল বাশার।

রাজধানী ঢাকার শাহাবাগ থানার তোপখানা রোড এলাকায় অভিযান চালিয়ে গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে তাদের গ্রেফতার করে র‌্যাব। এ সময় তাদের কাছ থেকে উদ্ধার করা হয় ভাউচার বই ও মোবাইল।

শুক্রবার বিকেলে কারওয়ান বাজারে র‍্যাব মিডিয়া সেন্টারে তার অবৈধ কর্মকাণ্ডের বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন করেন সংস্থাটির সদর দফতরের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন। 

তিনি বলেন, ২০০৬-০৭ সালের দিকে ইমামতির পাশাপাশি ‘এহসান এস মাল্টিপারপাস’ নামে একটি এমএলএম কোম্পানিতে ৯০০ টাকা বেতনের চাকরি করার মাধ্যমে এমএলএম কোম্পানির আদ্যপ্রান্ত রপ্ত করেন রাগীব। ২০০৮ সালে ‘এহসান রিয়েল এস্টেট’ নামে একটি এমএলএম কোম্পানি প্রতিষ্ঠা করেন নিজেই। ওই প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে ১০ হাজার গ্রাহকের কাছ থেকে ১১০ কোটি টাকা নিয়ে ব্যবসা শুরু করেন।

রাগীব আহসান ১৯৮৬ সালে মাদরাসায় পড়াশোনা শুরু করেন। ১৯৯৯ সালে হাটহাজারী মাদরাসা থেকে তিনি পাস করেন। ২০০০ সালে খুলনার একটি মাদরাসা থেকে মুফতি ডিগ্রি লাভ করেন। এরপর মসজিদে ইমামতি করেন। 

র‌্যাব মুখপাত্র বলেন, ইমামতির পাশাপাশি ‘এহসান এস মাল্টিপারপাস’ নামে একটি এমএলএম কোম্পানিতে ৯০০ টাকা বেতনের চাকরি করার মাধ্যমে এমএলএম কোম্পানির আদ্যপ্রান্ত রপ্ত করেন রাগীব। ২০০৮ সালে ‘এহসান রিয়েল এস্টেট’ নামে একটি এমএলএম কোম্পানি প্রতিষ্ঠা করেন নিজেই। ওই প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে ১০ হাজার গ্রাহকের কাছ থেকে ১১০ কোটি টাকা নিয়ে ব্যবসা শুরু করেন।

এভাবেই প্রতারণা মাধ্যমে নিজের নামে এবং পরিবারের বিভিন্ন সদস্যদের মাধ্যমে গড়ে তোলেন হাজার কোটি টাকার সম্পদ।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএইচ