মুক্তিযোদ্ধা হয়েও তালিকায় নেই রাজ্জাক হাওলাদারের নাম, বাঁচার জন্য চান ভাতা

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৯ অক্টোবর ২০২০,   কার্তিক ১৪ ১৪২৭,   ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

মুক্তিযোদ্ধা হয়েও তালিকায় নেই রাজ্জাক হাওলাদারের নাম, বাঁচার জন্য চান ভাতা

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১০:১৬ ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০   আপডেট: ১০:১৬ ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০

রাজ্জাক হাওলাদার

রাজ্জাক হাওলাদার

ময়লা, শতছিন্ন জামার এক কোণে একটা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কোট পিনটি জানান দিচ্ছে '৭১-এ তার অবদানের কথা। কিন্তু মুক্তিযোদ্ধা ভাতা থেকে বঞ্চিত তিনি। তার নাম নাকি তালিকায় নেই।

যুদ্ধ নিয়ে জানতে চাওয়ায় বলা শুরু করেন তিনি। বললেন, ৬ নম্বর সেক্টরের যোদ্ধা তিনি। হাসেম নামের এক ব্যক্তির সঙ্গে যোগাযোগ হলে তিনি রাজ্জাক হাওলাদারকে ঢাকা থেকে বগুড়া নিয়ে যান। তখন তার বয়স, ২২-২৩। বগুড়া থেকে হিলি বর্ডার দিয়ে ভারতে ঢুকে ট্রেনিং নিয়েছেন। এরপর হিলি, জয়পুরহাট হয়ে, বগুড়া দত্তপাড়া, আর কি কি যেন বললো, ওইসব জায়গায় যুদ্ধ করেছেন। চালিয়েছেন এলএমজি। পরে নৌবাহিনীর চালক হিসেবে নাকি চাকরি করেছেন।

আর এখন পথে পথে ঘুরে অনাহারে দিন কাটে তার। হাতিরঝিলের এফডিসি মোড় হয়ে বাম দিকের রেস্টুরেন্টের পাশেই গাছের আড়ালে দেয়াল ঘেঁষে সিমেন্টের একটি বেঞ্চে বসে থাকেন তিনি। জীবনের কথা বলতেই কেঁদে ফেললেন, বললেন আমার মুক্তিযোদ্ধা ভাতার ব্যবস্থা কইরা দেন, আমি পথে ঘাটে না খাইয়া পইড়া থাকি। 

পথে আসার ঘটনা সম্পর্কে বললেন। স্ত্রীর সঙ্গে ছাড়াছাড়ি হয়ে যায়, নব্বইয়ের কিছু আগে। তারপর মানসিক ভারসাম্যহীন হয়ে যান। এরপর থেকেই পথে, পথে। তার অনেক কথা, রিপিটেশনে- দুই রকম হয়ে যাচ্ছিল। অনেক ক্ষেত্রে একটু উনিশ বিশ কথাও বলছিলেন। বিশেষ করে চাকরি ছাড়া কিংবা স্ত্রীর সঙ্গে বিচ্ছেদ এর বিষয়ে। বরিশালের গৌরনদীর মানুষ, ছিলেন ছোট থেকেই ঢাকায়। তার তিনজন মেয়ে আছে, একজন ছেলে আছে। মেয়েরা কোথায় আছে জানেন না, ছেলে সৌদি প্রবাসী এই তথ্য জানেন। তাদের সঙ্গে কোনো যোগাযোগ নেই।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএস