সাধারণ মুসল্লিদের ব্যানারে তাণ্ডবের চেষ্টা হেফাজতের

ঢাকা, মঙ্গলবার   ৩০ নভেম্বর ২০২১,   অগ্রহায়ণ ১৬ ১৪২৮,   ২৩ রবিউস সানি ১৪৪৩

সাধারণ মুসল্লিদের ব্যানারে তাণ্ডবের চেষ্টা হেফাজতের

নিজস্ব প্রতিবেদক  ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৩:০৬ ১৬ অক্টোবর ২০২১   আপডেট: ১৭:৩৯ ১৬ অক্টোবর ২০২১

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

জুমার নামাজের পর গতকাল শুক্রবার রাজধানীর বায়তুল মোকাররম মসজিদ থেকে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়। তবে সাধারণ মুসল্লিদের ব্যানারে এ বিক্ষোভ মিছিলের নেপথ্যে ছিল হেফাজত ইসলামসহ বেশ কিছু রাজনৈতিক দল।

এ বিক্ষোভ মিছিলটি পল্টন-বিজয়নগর হয়ে নাইটিঙ্গেল মোড় পেরিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে ব্যারিকেড দেয় পুলিশ। তখন মিছিলকারীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেল ছোড়ে। 

বিশ্বস্ত সূত্রে জানা গেছে, সাধারণ মুসল্লিদের ব্যানারে বিক্ষোভ মিছিল হলেও এতে হেফাজতে ইসলামসহ বেশকিছু রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মীদের অংশ নিতে দেখা গেছে। বিক্ষোভ মিছিলে হেফাজতের সাবেক নেতা মাওলানা মামুনুল হকসহ সংগঠনটির আটক হওয়া নেতাদের মুক্তির দাবিতে স্লোগান দিতেও শোনা গেছে।

এক মুসল্লি জানায়, জুমার নামাজ শেষে আমরা সাধারণ মুসল্লিরা বায়তুল মোকাররমের সামনে দাঁড়িয়ে কুমিল্লার ঘটনার প্রতিবাদ জানাচ্ছিলাম। হঠাৎ করে মাথায় কালিমা লেখা কালো ফিতা বাঁধা কিছু মুসল্লি এসে সরকারবিরোধী বক্তব্য দিতে শুরু করে। পরবর্তীতে হেফাজতের সাবেক নেতা মাওলানা মামুনুল হকসহ সংগঠনটির নেতাদের মুক্তির দাবিতে স্লোগান দেওয়া শুরু করে।

এদিকে বিএনপির নির্ভরযোগ্য গোপন সূত্রে জানা যায়, নির্বাচনকে সামনে রেখে আন্দোলন আন্দোলন বলে বার বার ব্যর্থ হওয়া বিএনপি শারদীয় দুর্গাপূজাকে ঘিরে গোপনে নাশকতার ছক কষেছে। আর এর নেপথ্যে ছিলেন তারেক রহমান। এতে জামায়াতেরও পূর্ণ সমর্থন ছিল।

পুলিশের মতিঝিল বিভাগের একজন উপ-পুলিশ কমিশনার জানান, দেশে অস্থিতিশীল পরিবেশ তৈরি করতে একটি গোষ্ঠী সাধারণ মুসল্লিদের বিক্ষোভ প্রতিবাদকে ব্যবহার করে বড় ধরনের সহিংসতা ঘটাতে চেয়েছিল। পুলিশ শুরু থেকে শান্তিপূর্ণভাবে নিরাপত্তা রক্ষায় নিয়োজিত ছিল। নাইটিঙ্গেল মোড়ে আসার পর বিক্ষোভকারীদের মধ্য থেকে কপালে কালিমা লেখা ফিতা বাঁধা বেশ কয়েকজন সরকারবিরোধী স্লোগান দিতে দিতে পুলিশের ওপর ইট-পাটকেল ছোড়ে।

তিনি আরো জানান, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কঠোর অবস্থানের কারণে সহিংসতাকারীরা সুবিধা করতে পারেনি।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডআর/টিআরএইচ