হতাশায় আক্রান্ত বিএনপির নেতা-কর্মীরা

ঢাকা, শনিবার   ২৮ নভেম্বর ২০২০,   অগ্রহায়ণ ১৪ ১৪২৭,   ১১ রবিউস সানি ১৪৪২

হতাশায় আক্রান্ত বিএনপির নেতা-কর্মীরা

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১১:৩৯ ৩১ অক্টোবর ২০২০   আপডেট: ১৯:১৯ ৩১ অক্টোবর ২০২০

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

একের পর এক নির্বাচন ও আন্দোলনে ব্যর্থ হয়ে বিএনপির সব পর্যায়ের নেতা-কর্মীদের ঘিরে ধরেছে হতাশা। দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের বক্তব্যে এরই মধ্যে পাওয়া গেছে এর সত্যতা।

শুক্রবার জাতীয় প্রেসক্লাবে এগ্রিকালচার অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (এ্যাব) আয়োজিত এক আলোচনা সভায় বিএনপির মহাসচিব নেতা-কর্মীদের উদ্দেশে বলেন, আপনারা কখনোই হতাশার কথা বলবেন না। যা করবেন, আশা নিয়ে করবেন।

তবে ফখরুলের কথায় কর্মীদের মধ্যে তেমন আশা জাগেনি। বরং সভায় উপস্থিত কয়েকজন নেতা বলেন, কর্মীদের হতাশ না হতে বললেও মির্জা ফখরুল নিজেই হতাশ। তাই তো দলের আন্দোলন এবং দেশের জন্য বক্তব্য না দিয়ে বেশিরভাগ সময় নিজের পরিবারের সদস্যদের নানা বিষয় নিয়ে কথা বলেন তিনি।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক দলের এক শীর্ষ নেতা বলেন, বর্তমানে কোনো ইস্যুতেই বিএনপিকে আর রাজপথে পাওয়া যায় না। তাদের সব কার্যক্রমই হচ্ছে ভার্চুয়ালি। দলের মহাসচিব হিসেবে মীর্জা ফখরুল এ দায় এড়াতে পারেন না। 

এদিকে রাজনৈতিক বিশ্লেষক ও বুদ্ধিজীবীদের দাবি, নিজেদের ব্যর্থতা ঢাকতেই বিএনপি নেতারা বারবার দায় এড়ানো বক্তব্য দেন। তারা নিজেদের স্বার্থ হাসিল করতে গিয়ে দলের ক্ষতি করছেন। অবশেষে দোষ চাপাচ্ছেন অন্যের ওপর। আর তাদের কারণেই বিএনপি বর্তমানে জনগণের কাছে নালিশ পার্টিতে পরিণত হয়েছে।

তারা বলেন, ২০১৫ সালের লাগাতার অবরোধ কর্মসূচি এবং আন্দোলনের নামে বিএনপির মানুষ হত্যা ও জ্বালাও-পোড়াওয়ের ফলে দেশের জনগণ তাদের প্রতি বিমুখ। শুধু তাই নয়, তাদের একের পর এক জনবিরোধী কর্মকাণ্ডে বিএনপিকে বিশ্বাসও করতে পারছে না জনগণ। তাই কোনো কিছুতেই জনগণকে সম্পৃক্ত করতে পারছে না তারা। এর ব্যর্থতা বিএনপির সব নেতা-কর্মীদের ওপরই বর্তায়।

ডেইলি বাংলাদেশ/এএএম/জেডআর/আরএইচ