নজরুলের সাহিত্যকর্ম বিশ্বে ছড়িয়ে দিতে হবে: খিলখিল কাজী

ঢাকা, সোমবার   ২৩ মে ২০২২,   ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯,   ২১ শাওয়াল ১৪৪৩

Beximco LPG Gas

নজরুলের সাহিত্যকর্ম বিশ্বে ছড়িয়ে দিতে হবে: খিলখিল কাজী

ঢাবি প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৩:২৫ ২৮ আগস্ট ২০২১   আপডেট: ১৫:৪৪ ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১

শুক্রবার (২৭ আগস্ট) সকালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মসজিদের পাশে কবির সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করে কবির পরিবারের লোকজনসহ বিভিন্ন স্তরের, নানা শ্রেণি পেশার মানুষ।

শুক্রবার (২৭ আগস্ট) সকালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মসজিদের পাশে কবির সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করে কবির পরিবারের লোকজনসহ বিভিন্ন স্তরের, নানা শ্রেণি পেশার মানুষ।

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ৪৫তম মৃত্যুবার্ষিকীতে কবির সমাধিতে শ্রদ্ধা জানাতে এসে খিলখিল কাজী বলেছেন, জাতীয় কবির রচনাবলি আজও অনুবাদ হয়নি। বাংলাদেশি বা বাঙালিদের মধ্যেই এগুলো বেধে রাখা হয়েছে। কবরে শুধু ফুল দিলেই তার প্রতি যথাযথ শ্রদ্ধা জানানো হয় না। তার কাজগুলো সারাবিশ্বে ছড়িয়ে দিতে আমাদের দ্বায়িত্ব রয়েছে। এটা রাষ্ট্রীয় দ্বায়িত্ব, এটা অসম্পূর্ণ রয়ে গেছে। নজরুলের গ্রন্থগুলো ইংরেজিসহ সারা পৃথিবীর গুরুত্বপূর্ণ ভাষায় অনুবাদ করে তাদের পৌঁছে দেয়া উচিত। 

শুক্রবার (২৭ আগস্ট) সকালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মসজিদের পাশে কবির সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেছেন পরিবারের লোকজনসহ বিভিন্ন স্তরের, নানা শ্রেণি পেশার মানুষ। 

তার লেখা গান ‘মসজিদেরই পাশে আমার কবর দিও ভাই/ যেন গোরে থেকেও মোয়াজ্জিনের আজান শুনতে পাই।’ সেই বিবেচনায় জাতীয় কবিকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মসজিদের পাশে কবর দেয়া হয়। 

সকাল সাড়ে ৭টায় কবি পরিবারের পক্ষ থেকে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন কবির নাতনি খিলখিল কাজী। শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে তারা কবির আত্মার শান্তি কামনায় মোনাজাতে অংশ নেন। শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে খিলখিল কাজী বলেন, বাঙালির আত্নপ্রকাশের দুর্দান্ত প্রেরণা ছিলেন কাজী নজরুল ইসলাম। তার লেখনি সবসময় অন্যায়-অত্যাচারের বিরুদ্ধে কাজ করেছে। এতবড় অসাম্প্রদায়িক কবি মনে হয় পৃথিবীতে আর আসেনি। তিনি সব সময় মানুষের জয়গান গেয়েছেন। 

বিদ্রোহী কবিতার শতবর্ষ পূর্তি উপলক্ষ্যে তিনি বলেন, বিদ্রোহী সত্তা যে উৎপীড়িত, নিপিড়ীত, লাঞ্ছিত, মানুষের কথা বলেছেন। আজকে পৃথিবীতে যে হানাহানি, জাতিগত বিভেদ চলছে তা দূর করতে বিদ্রোহীকে যদি অনুবাদ করে সারা পৃথিবীতে পৌঁছে দিতে পারি তাহলে সেটিই হবে আজকের দিনের সবচেয়ে বড় কাজ। 

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ৪৫তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে বাদ ফজর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় মসজিদ মসজিদুল জামিয়া’য় কোরানখানি অনুষ্ঠিত হবে। সকাল সাড়ে ১০টায় উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামানের সভাপতিত্বে প্রশাসনিক ভবনস্থ অধ্যাপক আব্দুল মতিন চৌধুরী ভার্চুয়াল ক্লাসরুমে এক ভার্চুয়াল আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনা সভায় নজরুল বিশেষজ্ঞ হিসেবে জাতীয় অধ্যাপক ড. মো. রফিকুল ইসলাম বক্তব্য রাখেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডএম

English HighlightsREAD MORE »