ঢাকা, শুক্রবার   ২২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯,   ফাল্গুন ৯ ১৪২৫,   ১৬ জমাদিউস সানি ১৪৪০

আরো যারা এক হাতে ব্যাট করেছিলেন

স্পোর্টস ডেস্ক :: sports-desk

 প্রকাশিত: ১৭:৫৩ ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮   আপডেট: ১৭:৫৩ ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

এশিয়া কাপের উদ্বোধনী ম্যাচে হাতের কব্জিতে আঘাত পেয়ে মাঠ ছাড়েন তামিম ইকবাল। এরপর শেষ উইকেটে মুশফিকুর রহিমকে সঙ্গ দিতে আবারো মাঠে নামেন। তামিমের এই সাহসী পদক্ষেপে ক্রিকেট বিশ্বজুড়েই প্রশংসার ঝড় তুলেছে। তবে এর আগেও এমন সাহসী সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন তিনজন। হাতে আঘাত পাওয়ার পরেও দলের স্বার্থে আবারো ব্যাট হাতে মাঠে নেমেছিলেন।

১৯৮৪ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে হাত ভেঙে যায় ইংলিশ ক্রিকেটার পল টেরির। তবে শেষ উইকেটে প্লাস্টার করা হাত জার্সির ভেতরে বেঁধে মাঠে নেমে পড়েন পল টেরি।

একই বছর ওয়েস্ট ইন্ডিজ কিংবদন্তী পেসার ম্যালকম মার্শাল সেই ইংরেজদের বিপক্ষেই ভাঙ্গা হাত নিয়েই মাঠে নেমে পড়েন। এক হাতেই ইংলিশ পেসারদের ঠেকানোর সাহসীকতা দেখান। তার আউট হওয়ার পর ইংরেজ ক্রিকেটাররা পর্যন্ত তাকে সম্মান জানায়।

২০০৯ সালে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টেস্টের চতুর্থ ইনিংসে ৩২৪ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নামে দক্ষিণ আফ্রিকা। কিন্তু ইনিংসের শুরুতেই মিচেল জনসনের বলে হাতে আঘাত নিয়ে মাঠ ছাড়েন গ্রায়েম স্মিথ। ২৫৭ রানে যখন দক্ষিণ আফ্রিকার নবম উইকেটের পতন ঘটে সবাইকে অবাক করে দিয়ে ভাঙ্গা হাত নিয়েই আবারো মাঠে নামেন স্মিথ। অস্ট্রেলিয়ান পেসারদের একের পর এক বুলেট গতির বল আটকাতে থাকেন স্মিথ। শেষ উইকেট জুটিতে ১৫ রান সংগ্রহ করে জনসনের দুর্দান্ত এক ডেলিভারিতে বোল্ড হন আফ্রিকার সাবেক এই অধিনায়ক। ম্যাচ জেতাতে না পারলেও সাহসী এই সিদ্ধান্তের জন্য ক্রিকেট ইতিহাসে আলাদাভাবেই জায়গা করে নিয়েছেন গ্রায়েম স্মিথ।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমএইচ