ভোট ৩০ ডিসেম্বরই, পেছানোর সুযোগ নেই

ঢাকা, শুক্রবার   ২৪ মে ২০১৯,   জ্যৈষ্ঠ ১০ ১৪২৬,   ১৯ রমজান ১৪৪০

Best Electronics

ভোট ৩০ ডিসেম্বরই, পেছানোর সুযোগ নেই

 প্রকাশিত: ১৮:৩৫ ১৫ নভেম্বর ২০১৮   আপডেট: ১৮:৩৯ ১৫ নভেম্বর ২০১৮

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

নির্বাচন পেছানোর আর সুযোগ নেই, ৩০ ডিসেম্বরই ভোট হবে বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশন সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ।

তিনি বলেন, ঐক্যফ্রন্টের নির্বাচন পেছানোর দাবি কমিশন চুলচেরা বিশ্লেষণ করেছে। তাদের নির্বাচন পেছানোর দাবি যুক্তিসঙ্গত ও বাস্তবসম্মত নয় বলে কমিশন মনে করে। কাজেই নির্বাচন পেছানোর আর সুযোগ নেই। কমিশন সিদ্ধান্ত নিয়েছে ৩০ ডিসেম্বরই ভোট হবে।
 
বৃহস্পতিবার বিকেলে এক জরুরি সংবাদ সম্মেলনে নির্বাচন কমিশন সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ এ কথা জানান।

নির্বাচন না পেছানোর কারণ উল্লেখ করে ইসি সচিব বলেন, জানুয়ারিতে ভোটের ক্ষেত্রে কিছু আইনি ও সাংবিধানিক বিষয় রয়েছে। 

এ প্রসঙ্গে তিনি জানান, কোথাও পুনর্নির্বাচন, অনিয়ম হলে তা তদন্ত, গেজেট প্রকাশের বিষয়ও রয়েছে। এছাড়া জানুয়ারি মাসে বিশ্ব ইজতেমা অনুষ্ঠিত হবে। সেখানে ৩০-৪০ লাখ ধর্মপ্রাণ মুসলমান ও লক্ষাধিক আইনশৃঙ্খলা বাহিনী নিয়োজিত থাকবেন। কমিশন এসব বিশ্লেষণ করেছে।

ঐক্যফ্রন্টের ইভিএম না দেয়া ও সেনা মোতায়েনের দাবি প্রসঙ্গে হেলালুদ্দীন আহমদ বলেন, শহরাঞ্চলে স্বল্প পরিসরে ইভিএম ব্যবহারের কমিশনের নেয়া সিদ্ধান্ত এখনো বহাল আছে। সেনাবাহিনী মোতায়েনের ব্যাপারে কমিশনের সিদ্ধান্ত রয়েছে। তবে কীভাবে, কবে মোতায়েন হবে, তা সেনাবাহিনীর সঙ্গে আলাপ করে কমিশন পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেবে।

ভোটের দুই-তিন দিন আগে মাঠে সেনাবাহিনী থাকবে সকালে দেয়া ইসি সচিবের বক্তব্যের বিষয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আমি বিষয়টি ওইভাবে বলিনি। সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণে আমি বলেছি, নির্বাচনে সেনাবাহিনী ও বিজিবি মোতায়েন হলে সেখানে তাদের থাকার ব্যবস্থার করতে। আমি থাকার বিষয়ে বলেছি। মোতায়েন হওয়া না হওয়ার বিষয়ে বলিনি।

অপর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, কোন কোন দল ধানের শীষে নির্বাচন করতে চায়, তা বিএনপি এবং কোন কোন দল নৌকা প্রতীকে নির্বাচন করতে চায়, তা আওয়ামী লীগ লিখিতভাবে জানিয়েছে।

হেলালুদ্দীন আহমদ আরো বলেন, জোটভুক্ত কোনো দল অন্য দলের প্রতীকে নির্বাচন করতে নিবন্ধিত দলগুলোই সুযোগ পাবে। যারা নিবন্ধিত নয়, তারা এই সুযোগ পাবে না। তবে, অনিবন্ধিত দলের কেউ অন্য কোনো দলের প্রতীকে নির্বাচন করতে চাইলে সেই দলের মনোনয়ন নিতে হবে।

হেলালুদ্দীন আহমদ আরো জানান, আজ জোটবদ্ধ নির্বাচন বিষয়ে কমিশনকে তথ্য দেয়ার শেষ দিন। আজকের মধ্যে যেসব দল কমিশনকে তথ্য দেবে, সেটা আমরা যাচাই-বাছাই করে দেখবো।

অপর এক প্রশ্নের জবাবে হেলালুদ্দীন আহমদ বলেন, আওয়ামী লীগ যেসব দলের তালিকা দিয়েছে, সেখানে বিকল্পধারার নাম নেই।

ডেইলি বাংলাদেশ/এসআই

Best Electronics