Exim Bank
ঢাকা, শনিবার ২৩ জুন, ২০১৮
Advertisement

সংসারতো করতে চেয়েছিলাম, কিন্তু...

 নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১০:১৬, ৩০ জানুয়ারি ২০১৮

আপডেট: ১৩:৪৫, ১ ফেব্রুয়ারি ২০১৮

৬০১৪ বার পঠিত

শ্রাবস্তী দত্ত তিন্নির

শ্রাবস্তী দত্ত তিন্নির

আধুনিক এ সময়ে একজন মডেল-অভিনেত্রীর নিখোঁজ হওয়ার বিষয়টি সত্যিই বিস্ময়কর। একধিক মোবাইল নম্বর। তবুও খোঁজ নেই। কোথাও চেষ্টা করে মিললো না। বলা হচ্ছে দেশীয় শোবিজ অঙ্গনের আলোচিত-সমালোচিত মডেল অভিনেত্রী শ্রাবস্তী দত্ত তিন্নির কথা।

তিন তিনটি মোবাইল নম্বর তার। একটিতেও পাওয়া যায়নি তাকে। কোথায় আছেন তিন্নি? এমনই প্রশ্ন সবার। ২০১৫ সালের অক্টোবর মাসে এক খবরে প্রকাশ হয় তিন্নির দ্বিতীয় বিয়ের কথা। এরপর আর খুঁজে পাওয়া যাইনি।

এদিকে গেলো বছর দীর্ঘদিন পর আবারো একটি একক নাটকে অভিনয় করেন তিন্নি। তিনি বলেন, এখন হুটহাট করে কাজ করতে পছন্দ করি। বাইরে যখন বের হই তখন অনেক ভক্ত বলেন, আপনি তো বলেছেন অভিনয়ে নিয়মিত হবেন। তাহলে কাজ করেন না কেনো? এমন প্রশ্ন শুনতে ভালো লাগে এই ভেবে যে, দর্শক এখনো আমাকে চান। শুধু তাদের জন্য সিদ্ধান্ত নিয়েছি মিডিয়ায় কাজ করবো।

এমন সিদ্ধান্তের পর তিনি আবারো নিখোঁজ। গত মাস কয়েক আগেই কানাডা পাড়ি জমিয়েছেন আলোচিত মডেল-অভিনেত্রী শ্রাবস্তী দত্ত তিন্নি। সেখানে মেয়ে আরিশাকে নিয়ে ভালোই কাটছে তার। তবে সেখানে তিনি ঘুরতে যাননি, গিয়েছেন স্থায়ীভাবে থাকতে।

জানা গেছে, মেয়ে আরিশাকে সেখানেই বড় করতে চান তিনি। আর তাই আরিশাকে সেখানকার স্কুলে ভর্তি করিয়েছেন। মা-মেয়ে দু’জনই বেশ ভালো সময় পার করছেন।

তাদের সেসব সুন্দর মুহূর্তের ছবি নিজের ফেসবুক ওয়ালেও পোস্ট করতে ভুলছেন না তিন্নি। তবে তিন্নি যদি সেখানে স্থায়ী হন তাহলে কি মিডিয়াকে বিদায় জানাচ্ছেন? তিনি কি আর ফিরবেন না? তার সাবলীল অভিনয়-পারফরমেন্স কি আর দেখবেন না দর্শক? তিন্নি উত্তরে ডেইলি বাংলাদেশকে সরাসরি ‘হ্যাঁ’ কিংবা ‘না’ বললেও এড়িয়ে গিয়েছেন।

তিনি বলেন, আসলে এসব নিয়ে এখন ভাবছি না। আমার মেয়ে আরিশাকে নিয়েই কেবল ভাবছি। কারণ আমার জীবন এখন আরিশানির্ভর। আরিশাকে নিয়ে বাকিটা জীবন ভালো থাকতে চাই। আসলে সংসারতো করতে চেয়েছিলাম। কিন্তু সেট হলো না। এটা অবশ্য ভাগ্যের বিষয়।

তিন্নি এর জন্য অনেক হতাশাগ্রস্ত তাও না। কারণ, প্রত্যেকটি মানুষের জীবনের গল্প আলাদা। তারটাও আলাদা হবে সেটাই স্বাভাবিক।

তিনি জানান, হতে পারে আর ১০টা মেয়ের মতো আমি স্বামী-সংসারসহ জীবনটা কাটাতে পারছি না। কিন্তু তাতে আফসোস নেই আমার। কারণ আমার বেঁচে থাকার অবলম্বন একমাত্র আরিশা। সে আমার কাছে আছে। এটাই আমার কাছে মূল বিষয়।

আমি তাকে নিয়ে কানাডাতে ভালো থাকতে চাই। তবে দেশ, দেশের মানুষকে খুব মিস করি। মিডিয়াকেও মিস করি। অবশ্য আর ফেরা হবে কি না বলতে পারছি না।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডআই

সর্বাধিক পঠিত