৩ হাজারের বিনিময়ে ৫ লাখ প্রাণ!

ঢাকা, সোমবার   ২০ মে ২০১৯,   জ্যৈষ্ঠ ৫ ১৪২৬,   ১৪ রমজান ১৪৪০

Best Electronics

৩ হাজারের বিনিময়ে ৫ লাখ প্রাণ!

 প্রকাশিত: ২১:৫৪ ৯ নভেম্বর ২০১৮   আপডেট: ২২:১০ ৯ নভেম্বর ২০১৮

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ‘সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে যুদ্ধ’ নাম দিয়ে চালানো হামলায় এশিয়ার তিন দেশে কমপক্ষে পাঁচ লাখ মানুষকে হত্যা করেছে। ‘নাইন ইলেভেনের’ পর মার্কিন সেনাদের বর্বরতায় পাকিস্তান, আফগানিস্তান ও ইরাকে অর্ধ-মিলিয়ন মানুষ হত্যা করা হয়।

সম্প্রতি ব্রাউন বিশ্ববিদ্যালয়য়ের ওয়াটসন ইন্সটিটিউটের একটি প্রতিবেদনে এ তথ্য প্রকাশিত হয়। এতে এ হত্যার তথ্য উঠে আসে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, কোন যুদ্ধের নিহতের প্রকৃত সংখ্যা বের করা যায় না। কিন্তু আমরা এই যুদ্ধের নিহতের সংখ্যা মোটামুটি নিশ্চিত হতে পেরেছি। এ সংখ্যা চার লাখ ৮০ হাজার থেকে পাঁচ লাখ সাত হাজারের মতো হতে পারে।

যুক্তরাষ্ট্রের টুইন টাওয়ারে ২০০১ সালে সন্ত্রাসী হামলা চালানো হয়। এতে প্রায় তিন হাজার মার্কিন নাগরিক নিহত হয়। সেপ্টেম্বরের ১১ তারিখে এ হামলা ঘটেছে বিধায় ‘নাইন ইলেভেন’ নামে তা বিশ্বে পরিচিত।

বিশ্বের ক্ষমতাধর এই দেশটি এই হামলাকে কেন্দ্র করেই সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করে। আর এই সন্ত্রাস দমন হামলা যেন কাল হয়ে দাঁড়িয়েছে আফগানিস্তান, পাকিস্তান ও ইরাকের সাধারণ মানুষের উপর।

প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, এ পাঁচ লাখের মধ্যে মার্কিন সেনা নিহত হয়েছে মাত্র সাত হাজার। তবে অনেক সাধারণ জনগণ যুদ্ধের পাশ্ববর্তী প্রতিক্রিয়ায় মারা গিয়েছে।

১৭ বছরের এ যুদ্ধে পাঁচ লাখের বেশি মানুষ মারা গেলেও এসব যুদ্ধে নানা অনেকেই অঙ্গ-প্রতঙ্গ হারায়। মারাত্মক রোগে আক্রান্ত অনেক মানুষ এখনো এর ফল ভোগ করছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডআর

Best Electronics