.ঢাকা, শুক্রবার   ১৯ এপ্রিল ২০১৯,   বৈশাখ ৫ ১৪২৬,   ১৩ শা'বান ১৪৪০

বশেমুরবিপ্রবির ভর্তি পরীক্ষায় এসে বিড়ম্বনায় শিক্ষার্থীরা

 প্রকাশিত: ১৫:০৪ ৪ নভেম্বর ২০১৮   আপডেট: ১৫:০৪ ৪ নভেম্বর ২০১৮

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

গোপালগঞ্জ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যায়ের ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক প্রথম বর্ষের ভর্তি পরীক্ষা দিতে এসে বিড়ম্বনার শিকার হয়েছে শিক্ষার্থীরা।

পরীক্ষাকে কেন্দ্র করে হোটেল ব্যবসায়ী ও অটোরিকশা চালকদের বিরুদ্ধে বাড়তি টাকা নেয়ার অভিযোগ উঠেছে। এতে সীমাহীন ভোগান্তির মধ্যে পড়েছে বিভিন্ন অঞ্চল থেকে আসা হাজার হাজার শিক্ষার্থী ও তাদের অভিভাবকগণ।

শহরের নিম্নমানের আবাসিক হোটেলগুলোর সিট ভাড়া দুইশ থেকে আড়াইশ টাকার স্থলে আদায় করা হচ্ছে পাঁচশ থেকে সাতশ টাকা। এর থেকে ভালো মানের হোটেলগুলোতে আদায় করে নিচ্ছে এক হাজার থেকে দুই হাজার টাকা। এসি রুমের ভাড়া দেড় হাজারের স্থলে তিন থেকে সাড়ে তিন হাজার গুণতে হচ্ছে এসব শিক্ষার্থী বা অভিভাবকদের।

এছাড়া শহর থেকে মাত্র ৪ কিলোমিটার রাস্তা তারা ১০ টাকার স্থলে ৪০ টাকা আদায় করছে এমন অভিযোগ পরীক্ষার্থীদের। এছাড়া মৌসুমি খাবারে ব্যবসায়ীরাও পরীক্ষার্থীদের কাছ থেকে বাড়তি টাকা আদায়ের অভিযোগ পাওয়া গেছে। 

এক পরীক্ষার্থীর অভিভাবক বলেন, আমি গোপালগঞ্জে সচারচর হোটেলের যে সব রুমে তিনশ থেকে সাড়ে তিনশ টাকায় থেকেছি, সে রুমের ভাড়া আমার কাছ থেকে পনেরশ’ টাকা আদায় করা হয়েছে। এক প্রকার জুলুম করেই এ ভাড়া আদায় করা হয়। এটা থেকে পরিত্রাণের জন্য প্রশাসন এগিয়ে আসবেন এটাই সবার প্রত্যাশা।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমআর