Alexa হত্যার পর শ্বশুরের মরদেহ নদীতে ফেলে দেন জামাই

ঢাকা, বুধবার   ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০,   ফাল্গুন ৭ ১৪২৬,   ২৫ জমাদিউস সানি ১৪৪১

Akash

হত্যার পর শ্বশুরের মরদেহ নদীতে ফেলে দেন জামাই

বগুড়া প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০৪:০০ ১০ আগস্ট ২০১৯  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

বগুড়ার ধুনটে শ্বশুরকে গলাকেটে হত্যা মামলায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন জামাই নাহিদ।

শুক্রবার বিকেলে বগুড়া চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে জবানবন্দি দেন তিনি।

নিহত রুবেল আকন্দ ওই উপজেলার শিয়ালী গ্রামের শাহজাহান আলী আকন্দের ছেলে। নাহিদ একই উপজেলার নিমগাছী গ্রামের জাহিদুলের ছেলে। তিনি এ মামলার প্রধান আসামি।

জবানবন্দিতে নাহিদ জানান, ১৬ জুলাই রুবেল আকন্দকে অপহরণ করেন তিনি। এরপর শ্বাসরোধ ও গলা কেটে হত্যা করে বাঙ্গালী নদীতে ফেলে দেন।

ধুনট থানার এসআই ফারুক বলেন, হত্যাকাণ্ডের সাতদিন পর সিরাজগঞ্জের ফুলজোড় নদী থেকে মরদেহ উদ্ধার করা হয়। ২৩ জুলাই রুবেল আকন্দের ভাই মামলা করেন।

এসআই ফারুক আরো বলেন, বৃহস্পতিবার অভিযান চালিয়ে ঢাকা থেকে নাহিদকে গ্রেফতার করা হয়। শুক্রবার আদালতে হাজির করার পর তিনি হত্যার দায় শিকার করেন। এ ঘটনায় আরো কেউ জড়িত আছে কি না খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর