স্বামীর চিকিৎসার খরচ যোগাতে ষাটোর্ধ নারীর ম্যারাথন দৌড়

ঢাকা, রোববার   ২৯ মার্চ ২০২০,   চৈত্র ১৫ ১৪২৬,   ০৪ শা'বান ১৪৪১

Akash

স্বামীর চিকিৎসার খরচ যোগাতে ষাটোর্ধ নারীর ম্যারাথন দৌড়

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৬:৪০ ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০   আপডেট: ১৬:৪৪ ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০

লতা কার

লতা কার

বৃদ্ধ স্বামী গুরুতর অসুস্থ। রোগ নির্ণয়ে এমআরআই পরীক্ষা করাতে পরামর্শ দেন চিকিৎসক। পরীক্ষা করার পর্যাপ্ত টাকা নেই বৃদ্ধের স্ত্রী লতা কারের কাছে। ওই সময় প্রতিবেশী তরুণদের পরামর্শে স্বামীর চিকিৎসার খরচ যোগাতে ম্যারাথন দৌড়ে অংশ নেন বৃদ্ধা লতা। সেই অংশ নেয়া দৌড় আলোচনায় চলে আসে। পরে এমন কাহিনি নিয়ে নির্মিত হয়েছে সিনেমাও।-খবর বিবিসির।

বিবিসিকে ওই বৃদ্ধা বলেন, আমার স্বামী অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন। চিকিৎসক এমআরআই পরীক্ষা করতে দিয়েছিলেন। যার ফি পাঁচ হাজার রুপি। কিন্তু কে দেবে এতো রুপি। ওই সময় প্রতিবেশী তরুণেরা ম্যারাথন দৌড় প্রতিযোগিতার খবর দিল আমাকে।

তরুণরা আমাকে বলল, নানি তুমি অনেক হাঁটতে পারো। তুমি ম্যারাথন দৌড়ে জিততে পারবে। আমি তখন পুরস্কারের কথা জিজ্ঞেস করলাম। তারা বলল, পাঁচ হাজার রুপি। ভাবলাম, এতো রুপি পেলে স্বামীর এমআরআই করাতে পারব। এরপর দৌড়ানোর সিদ্ধান্ত নেই।

তিনি আরো বলেন, ২০১৪ সালে মহারাষ্ট্রে তিন কিলোমিটার দৌড়ে অংশ নেই। আমি নিয়মকানুন জানতাম না। তবে জেতার জন্য দৃঢ়প্রতিজ্ঞ ছিলাম। যখন সবাই হাততালি দিতে শুরু করলো তখন আমি ফিনিশিং লাইন থেকে দূরে। আমি বুঝতে পারলাম আমি জিতেছি। আমি পাঁচ হাজার রুপি পাবো।

বিবিসি জানায়, স্বামীর জন্য বৃদ্ধা লতার এমন ত্যাগ নিয়ে একটি সিনেমা তৈরি হয়েছে। সেই সিনেমায় খোদ লতা অভিনয় করেছেন। 
লতা আরো বলেন, আমি টাকা রোজগারের জন্য প্রতিযোগিতায় অংশ নেই। কখনো সিনেমায় অভিনয়ের কথা ভাবিনি।

লতা কারের স্বামী ভাগওয়ান কার বলেন, স্ত্রী নিজের কথা ভাবেননি। আমার চিকিৎসার জন্য তিনি দৌড়িয়েছেন। এ বয়সে তার এমন কষ্ট আমাকে ব্যথিত করেছে। তিনি যা অর্জন করেছেন, তা নিয়ে আমি গর্বিত।

>>ভিডিও দেখতে ক্লিক করুন<<

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকেএ