সোলারের সেচ পাম্পে কৃষকের সুদিন

.ঢাকা, শুক্রবার   ২৬ এপ্রিল ২০১৯,   বৈশাখ ১২ ১৪২৬,   ২০ শা'বান ১৪৪০

সোলারের সেচ পাম্পে কৃষকের সুদিন

নওগাঁ প্রতিনিধি

 প্রকাশিত: ১৩:১৪ ৮ ডিসেম্বর ২০১৮   আপডেট: ১৩:১৪ ৮ ডিসেম্বর ২০১৮

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

বিদ্যুতের বিকল্প হিসেবে সারা বিশ্বতেই সমাদৃত হচ্ছে সৌরবিদ্যুৎ। পিছিয়ে নেই বাংলাদেশও। সৌরবিদ্যুৎ এখন বাংলার আনাচে-কানাচে। দৈনন্দিন জীবনের গুরুত্বপূর্ণ কাজকর্মের পাশাপাশি কৃষি জমিতে সেচ কাজেও ব্যাপক পরিসরে ব্যবহৃত হচ্ছে সৌরবিদ্যুৎ।

দেশে প্রথমবারের মতো রাজশাহী অঞ্চলে সৌরবিদ্যুৎ চালিত সেচ পাম্প চালু করার পর এখন নওগাঁয় শুরু হয়েছে এর ব্যবহার। পোরশা, সাপাহার, নিয়মতপুর উপজেলায় শুরু হয়েছে সৌরবিদ্যুৎ চালিত পাম্প দিয়ে কৃষি জমিতে পানি সেচ।

পোরশা উপজেলার গফুর মণ্ডল বলেন, বিদ্যুৎ বিভ্রাটে অনেক সময় জমিতে সেচ দেয়া সম্ভব হয় না। এতে ফসলের ক্ষতি হওয়ার ঝুঁকি বেড়ে যায়। কিন্তু সৌরবিদ্যুতের পাম্পে বিদ্যুৎ বিভ্রাটের কোনো ঝুঁকি নেই। আত্রাই নদী থেকে পাইপলাইনে পানি সংগ্রহ করা হচ্ছে খাড়ি ও পুকুরে। এরপর পাম্পের মাধ্যমে পানি যাচ্ছে কৃষকের জমিতে। এতে একটি পাম্প থেকে প্রতিদিন পূর্ণ সেচ সুবিধা পাচ্ছে ১৮০ বিঘা জমি। এতে বাড়ছে ফসলের গুণগত মান, বেড়েছে ফলনও।

নিয়ামতপুর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা সৈয়দ আহম্মেদ বলেন, সৌরবিদ্যুৎ চালিত সেচ পাম্প স্থাপন করায় সারাবছর ধরে ফসল ফলাচ্ছেন কৃষকেরা। এতে অর্থনৈতিকভাবে লাভবান হচ্ছেন তারা। উপজেলার শতাধিক কৃষক এ সেচ পদ্ধতিতে উপকৃত হচ্ছেন। কৃষি জমিতে সৌরবিদ্যুৎ ব্যবহারে সুদিন ফিরছে নওগাঁর কৃষকদের।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর