সেফুদা বিতর্ক: প্রশ্নে বিতর্কিতদের নাম ব্যবহার করলে শাস্তি
SELECT bn_content.*, bn_bas_category.*, DATE_FORMAT(bn_content.DateTimeInserted, '%H:%i %e %M %Y') AS fDateTimeInserted, DATE_FORMAT(bn_content.DateTimeUpdated, '%H:%i %e %M %Y') AS fDateTimeUpdated, bn_totalhit.TotalHit FROM bn_content INNER JOIN bn_bas_category ON bn_bas_category.CategoryID=bn_content.CategoryID INNER JOIN bn_totalhit ON bn_totalhit.ContentID=bn_content.ContentID WHERE bn_content.Deletable=1 AND bn_content.ShowContent=1 AND bn_content.ContentID=118842 LIMIT 1

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ০৬ আগস্ট ২০২০,   শ্রাবণ ২২ ১৪২৭,   ১৫ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

Beximco LPG Gas

সেফুদা বিতর্ক: প্রশ্নে বিতর্কিতদের নাম ব্যবহার করলে শাস্তি

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৬:০০ ১২ জুলাই ২০১৯   আপডেট: ২০:২২ ১২ জুলাই ২০১৯

ফাইল ফটো

ফাইল ফটো

সৃজনশীল প্রশ্ন প্রণয়নে বিতর্কিতদের নাম ব্যবহার করলে শিক্ষকদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। এছাড়া প্রশ্ন প্রণয়নে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা না মানলেও শিক্ষকদের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছে ঢাকা বোর্ড।  অনাকঙ্খিত পরিস্থিতি এড়িয়ে চলতে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা মেনে প্রশ্ন প্রণয়ন করতে প্রতিষ্ঠান প্রধানদের বলেছে ঢাকা বোর্ড। ঢাকা বোর্ড থেকে জারি করা এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানা যায়।

এতে বলা হয়, মাধ্যমিক পর্যায়ে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান অভ্যন্তরীণ পরীক্ষায় বিতর্কিত বিষয়গুলো সৃজনশীল প্রশ্নের উদ্দীপক হিসেবে ব্যবহার করা হচ্ছে এতে বিব্রতকর পরিস্থিতি সৃষ্টি হচ্ছে। এছাড়া জনমনে বিরূপ প্রতিক্রিয়া পরিলক্ষিত হচ্ছে। এ ধরনের অনাকাঙ্খিত পরিস্থিতি শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে ২০০৯ এর  ২২ নভেম্বর একটি পরিপত্র জারি করা হয়েছিল।

বিজ্ঞপ্তিতে আরো বলা হয়, শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে ২০০৯ সালের ২২ নভেম্বর জারি করা পরিপত্র অনুযায়ী সৃজনশীল প্রশ্ন প্রণয়নে প্রধান শিক্ষক ও শিক্ষকদের নির্দেশনা দেয়া হচ্ছে। এ পরিপত্রের পরিপন্থী কোন প্রশ্ন প্রণয়ণ করা হলে প্রধান শিক্ষক ও বিষয়ভিত্তিক শিক্ষক ব্যক্তিগতভাবে দায়ি থাকবেন এবং প্রধান শিক্ষক ও সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। 

শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে ২০০৯ এর ২২ নভেম্বর জারি করা পরিপত্রে বলা হয়, পাঠ্যপুস্তকে রাজনৈতিক, ধর্মীয়, সামাজিকভাবে গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের নাম না থাকলে সৃজনশীল প্রশ্নের উদ্দীপক হিসেবে রাজনৈতিক, ধর্মীয় বা সামাজিকভাবে গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের নাম ব্যবহার করা যাবে না। দেশের সার্বভৌমত্ব, সরকার, কোন জনগোষ্ঠী, ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠি বা অঞ্চলকে নেতিবাচকভাবে উপস্থাপন করে কোন উদ্দীপক বা প্রশ্ন তৈরি করা যাবে না। ধর্ম, বর্ণ, গোত্র, গোষ্ঠী, ভাষা, সংস্কৃতি, ঐতিহ্য ও জাতীয় অনুষ্ঠানকে অমর্যাদা করে কোন প্রশ্ন তৈরি করা যাবে না। 

 পরিপত্রে আরো বলা হয়, রাষ্ট্র বা জাতিকে অমর্যাদা করে কোন উদ্দীপক বা প্রশ্ন তৈরি করা যাবে না। সংবিধান পরিপন্থী বা রাষ্ট্রবিরোধী কোনো বিষয় ব্যবহার করে উদ্দীপক ও প্রশ্ন প্রণয়ন করা যাবে না। ধর্ম, তীর্থস্থান, ধর্মীয় স্থাপনা, রাষ্ট্রীয় স্থাপনা, ঐতিহাসিক স্থান ইত্যাদিকে অসম্মান করে কোন উদ্দীপক ও প্রশ্ন প্রণয়ন করা যাবে না। কোন অশোভন ছবি বা বিতর্কিত ব্যক্তি ও তার কার্যকালাপ উদ্দীপক হিসেবে ব্যবহার করা যাবে না। সরকার ও সমাজ কর্তৃক অননুমোদিত বা অগ্রহণযোগ্য বিষয়সমূহ ইতিবাচক অর্থে সৃজনশীল প্রশ্নে ব্যবহার করা যাবে না। 

ডেইলি বাংলাদেশ/এমএইচ