সুস্থ থাকতে পানি পান করুন এই সময়গুলোতে
SELECT bn_content.*, bn_bas_category.*, DATE_FORMAT(bn_content.DateTimeInserted, '%H:%i %e %M %Y') AS fDateTimeInserted, DATE_FORMAT(bn_content.DateTimeUpdated, '%H:%i %e %M %Y') AS fDateTimeUpdated, bn_totalhit.TotalHit FROM bn_content INNER JOIN bn_bas_category ON bn_bas_category.CategoryID=bn_content.CategoryID INNER JOIN bn_totalhit ON bn_totalhit.ContentID=bn_content.ContentID WHERE bn_content.Deletable=1 AND bn_content.ShowContent=1 AND bn_content.ContentID=130373 LIMIT 1

ঢাকা, শনিবার   ১৫ আগস্ট ২০২০,   শ্রাবণ ৩১ ১৪২৭,   ২৪ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

Beximco LPG Gas

সুস্থ থাকতে পানি পান করুন এই সময়গুলোতে

স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৫:৩৭ ৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

পানি জীবনরক্ষক। মানবদেহের প্রায় ৬০ শতাংশ পানি দিয়ে গঠিত। তাই পানি মানুষের অস্তিত্বের জন্য প্রয়োজন। পানি জয়েন্টগুলোতে লুব্রিকেট করে, শরীর জুড়ে অক্সিজেন সরবরাহ করে, শরীরের তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে, হজমে সহায়তা করে, শরীর থেকে বিষাক্ত পদার্থকে ফ্লাশ করে এবং বিভিন্ন উপায়ে  শরীরের নানা সহায়তা করে।  

সুস্থ থাকার জন্য প্রতিদিন কমপক্ষে দুই লিটার পানি পান করা গুরুত্বপূর্ণ। কিন্তু আপনি জানেন কি, ভুল সময় পানি পান করলে শরীরের নানা ধরনের ক্ষতি হতে পারে। যা দেহের ভেতরে এমন কিছু পরিবর্তন ঘটায় যার প্রভাবে শরীর খারাপ হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে। তাই জেনে নিন, কোন কোন সময় পানি পান করা উচিত-

সকালে উঠে পানি পান করুন
সকালে এক গ্লাস পানি পান করে দিন শুরু করুন। এটি শরীর থেকে বিষাক্ত পদার্থগুলো সরাতে সহায়তা করবে। সারা দিন শক্তি যোগাবে। সাধারণ বা উষ্ণ পানি পান করুন। তবে সকালে ঠান্ডা পানি পান করা এড়িয়ে চলুন।

খাওয়ার আগে
খাবারের আগে পানি পান করা আপনাকে পরিপূর্ণ বোধ করাবে। যা অতিরিক্ত খাওয়া থেকে বিরত রাখবে। খাওয়ার সময় থেকে ৩০ মিনিট আগে এক গ্লাস পানি পান করুন। এটি পেটের আস্তরণকে ময়শ্চারাইজ করবে।

যখন ক্ষুধার্ত হবেন
আমরা যখন তৃষ্ণার্ত হই তখন কখনো কখনো ক্ষুধার্ত বোধ করি। সুতরাং ক্ষুধার্ত হলে এক গ্লাস পানিতে পান করুন। যা ক্ষুধা বা তৃষ্ণা মেটাতে সহায়তা করবে।

শরীরচর্চার আগে ও পরে
ডিহাইড্রেশন থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য, শরীরচর্চার আগে ও পরে দুই থেকে তিন গ্লাস পানি পান করা গুরুত্বপূর্ণ। এটি শরীরে তরল ভারসাম্য বজায় রাখতে সাহায্য করবে।

যখন অসুস্থ হবেন
অসুস্থ হলে আপনার পানি পানের পরিমাণ বাড়ান। এটি কেবল হাইড্রেট করবে না বরং শরীর থেকে বিষাক্ত পদার্থগুলো সরিয়ে দেবে। দ্রুত পুনরুদ্ধারে সহায়তা করবে।

যখন ক্লান্ত হয়ে পড়বেন
ক্লান্ত বোধ করছেন কিন্তু কিছুক্ষণ বিশ্রাম নেয়ার সময় পাচ্ছেন না তবে এক গ্লাস পানি পান করুন। যা মস্তিষ্ককে কিছুটা উৎসাহ বাড়িয়ে দেবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমআর/এএ