সুদের টাকা না পেয়ে ফাটালেন নারীর মাথা
SELECT bn_content.*, bn_bas_category.*, DATE_FORMAT(bn_content.DateTimeInserted, '%H:%i %e %M %Y') AS fDateTimeInserted, DATE_FORMAT(bn_content.DateTimeUpdated, '%H:%i %e %M %Y') AS fDateTimeUpdated, bn_totalhit.TotalHit FROM bn_content INNER JOIN bn_bas_category ON bn_bas_category.CategoryID=bn_content.CategoryID INNER JOIN bn_totalhit ON bn_totalhit.ContentID=bn_content.ContentID WHERE bn_content.Deletable=1 AND bn_content.ShowContent=1 AND bn_content.ContentID=132058 LIMIT 1

ঢাকা, সোমবার   ১০ আগস্ট ২০২০,   শ্রাবণ ২৬ ১৪২৭,   ১৯ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

Beximco LPG Gas

সুদের টাকা না পেয়ে ফাটালেন নারীর মাথা

গৌরীপুর (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৬:৩৬ ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৯  

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ময়মনসিংহের গৌরীপুরে সুদ ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে সুদের টাকা না পেয়ে এক নারীর মাথা ফাটানোর অভিযোগ উঠেছে। আহত ওই নারী ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

বুধবার সকালে উপজেলার রামগোপালপুর ইউপির বাহাদুরপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। আহত সাবিনা বেগম ওই এলাকার বাসিন্দা। 

সাবিনা বেগমের ছোট বোন গার্মেন্টস কর্মী সুলতানা আক্তার জানান, প্রায় আট মাস আগে প্রতিবেশী শরিফার কাছ থেকে সুলতানার অজান্তে ৫০ হাজার টাকা ধার নেন স্বামী মিন্টু মিয়া। টাকা ধার নেয়ার পর তাকে ছেলে আত্মগোপনে যান মিন্টু। এদিকে স্বামী আত্মগোপনে চলে যাওয়ার পর আর্শেদ আলী ও তার লোক সুদের টাকার জন্য সুলতানাকে নানা হুমকি দেন। সুদের টাকা না পেয়ে আর্শেদ আলী ও তার লোক সুলতানার বাড়িতে এসে হামলা করে। এ সময় তার বড় বোন সাবিনা বেগম এগিয়ে এলে তার মাথায় লাঠি দিয়ে আঘাত করে তারা। এতে তিনি রক্তাক্ত হলে ময়ময়নসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। 

তিনি আরো জানান, তার সঙ্গে মিন্টু মিয়ার কোনো যোগাযোগ নেই। তবুও টাকার জন্য তার ওপর চাপ সৃষ্টি করা হচ্ছে। 

অভিযুক্ত আর্শেদ আলী জানান, গাজীপুরের শ্রীপুর গড়গড়ীয় মাস্টারবাড়ি এলাকায় গার্মেন্টসে চাকুরির সময় শরীফা মিন্টুকে ৫০ হাজার টাকা ঋণ দিয়েছিল। ঋণ নেয়ার কিছুদিন পর মিন্টু আত্মগোপন করেন। পরে টাকা পরিশোধের জন্য তার স্ত্রী সুলতানাকে জানালে তিনি টাকা শোধের জন্য কয়েকটি তারিখ করেন। এ নিয়ে সম্প্রতি সালিশ হলে সেখানে সুলতানা উপস্থিত হননি।

তিনি আরো জানান, সালিশে উপস্থিত না থাকার কারণ জানতে সুলতানার বাড়িতে যান আর্শেদ। এ সময় সুলতানা অসৌজন্যমূলক আচরণ করেন। এক পর্যায়ে সুলতানার চাচা কবির লাঠি দিয়ে তাদের আঘাত করলে সেই আঘাত সাবিনা বেগমের ওপর পড়ে।

এদিকে আর্শেদ আলীর বক্তব্যকে মিথ্যা ও বানোয়াট বলে দাবি করেন সুলতানা আক্তার। 

গৌরীপুর থানার ওসি (তদন্ত) গোলাম মাওলা বলেন, এ ব্যাপারে ভুক্তভোগী নারী লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। ঘটনাটি তদন্ত করে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে। 

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকেএ