সাবমেরিন ক্যাবল কাটা পড়ায় মামলা, গ্রেফতার ২

ঢাকা, মঙ্গলবার   ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০,   আশ্বিন ১৫ ১৪২৭,   ১২ সফর ১৪৪২

সাবমেরিন ক্যাবল কাটা পড়ায় মামলা, গ্রেফতার ২

পটুয়াখালী প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৭:৩২ ১০ আগস্ট ২০২০  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় দ্বিতীয় সাবমেরিন ক্যাবল ল্যান্ডিং স্টেশনের পাওয়ার সাপ্লাইয়ের সংযোগ ক্যাবল কেটে সঞ্চালন ব্যবস্থা ক্ষতিগ্রস্ত করার অভিযোগে দুইজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সোমবার দুপুরে মহিপুর পুলিশ তাদের গ্রেফতার করে। গ্রেফতাররা হলেন- হোসেন মোল্লা স্থানীয় লতাচাপলি ইউপির চেয়ারম্যান আনসার উদ্দিন মোল্লার ছোট ভাই এবং আবুল হোসেন মোল্লার সহযোগী।

এর আগে কাটা পড়া দ্বিতীয় সাবমেরিন ক্যাবল ১২ ঘণ্টা ধরে মেরামতের পর ইন্টারনেটের গতি স্বাভাবিক হয়। মেরামত কাজ শেষে রোববার দিবাগত রাত ১২টা ১৭ মিনিটে ইন্টারনেট সংযোগ পুনস্থাপন করতে সক্ষম হয় বাংলাদেশ ক্যাবল কোম্পানি লিমিটেড (বিএসসিসিএল) কর্তৃপক্ষ। 

বিষয়টি নিশ্চিত করে বিএসসিসিএল’র ব্যবস্থাপনা পরিচালক মশিউর রহমান বলেন, ক্যাবল কাটা পড়ার পরপরই রোববার দুপুর ১২টা থেকে স্থানীয় প্রকৌশলীরা কাজ শুরু করেন এবং পরে ঢাকা থেকে বিশেষজ্ঞ দল তাদের সঙ্গে যোগ দিয়ে রাত ১২টা অবধি ক্যাবল মেরামত শেষ করেন।

এ কাজটি খুবই সূক্ষ্ম এবং সময় নিয়ে করতে হয়েছে জানিয়ে তিনি আরো বলেন, এমন পরিস্থিতিতে এর আগে আমাদের পড়তে হয়নি। তারপরও আমরা কাজটি সফলতার সঙ্গে শেষ করতে পেরেছি। এতে ইন্টারনেটের গতি স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরেছে। গ্রাহকদের দুর্ভোগ লাঘব হয়েছে। গতকাল রোববার রাতে সাবমেরিন ক্যাবল জোড়া দেয়া হয়।

ক্যাবল কাটার অভিযোগে দ্বিতীয় সাবমেরিন ক্যাবল স্টেশনের নিরাপত্তা কর্মকর্তা হারুন-অর-রশিদ বাদী হয়ে রোববার রাতে মহিপুর থানায় পাঁচজনকে আসামি করে একটি মামরা দায়ের করেন। পুলিশ ওই মামলার আসামিদের মধ্যে দুইজনকে আলীপুর বাজার সংলগ্ন এলাকা থেকে গ্রেফতার করেছে।

মহিপুর থানার ওসি মনিরুজ্জামান জানান, অপর আসামিদের গ্রেফতারে আমরা সচেষ্ট আছি এবং যথাযথ তদন্ত শেষে প্রকৃত দোষীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

উল্লেখ্য, লতাচাপলি ইউপির চেয়ারম্যান আনসার উদ্দিন মোল্লার নিয়োজিত শ্রমিকরা সাবমেরিন ক্যাবল স্টেশনের পাশের একটি জমির চারদিকে বাঁধ দিচ্ছিলেন। মাটি কাটার যন্ত্র (এক্সাভেটর) দিয়ে মাটি কেটে তোলার সময় ভূগর্ভস্থ ক্যাবলটি কেটে ২০ ফুট ওপরে উঠে যায়। ফলে দেশজুড়ে গ্রাহকরা ইন্টারনেটের ধীরগতির সমস্যায় পড়েন।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএম