সন্ত্রাসী বাহিনীর পলায়ন, দুধ দিয়ে পাপমোচন

ঢাকা, মঙ্গলবার   ৩১ মার্চ ২০২০,   চৈত্র ১৭ ১৪২৬,   ০৬ শা'বান ১৪৪১

Akash

সন্ত্রাসী বাহিনীর পলায়ন, দুধ দিয়ে পাপমোচন

যশোর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২১:৩১ ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

যশোরের কেশবপুরে হাতুড়ি বাহিনী ও গামছা বাহিনীর অভিশাপ থেকে মুক্ত হলো উপজেলা কৃষকলীগের কার্যালয়। দুধ দিয়ে ধুয়ে মোচন করা হলো দীর্ঘদিনের পাপ।

মঙ্গলবার সেখান থেকে দুই বাহিনীর অস্ত্র উদ্ধার করেছে পুলিশ। এরপরই দুধ দিয়ে কার্যালয় ধুয়ে দেন নেতাকর্মীরা।

জানা গেছে, ২০১৪ সাল থেকে উপজেলা কৃষকলীগের অফিসটি হাতুড়ি বাহিনী ও গামছা বাহিনীর দখলে ছিলো। সেখানেই চলতো মাদক ব্যবসা ও সেবন, চাঁদাবাজি, ডাকাতিসহ বিভিন্ন কর্মকাণ্ড। তাদের অত্যাচারে আতঙ্কিত হয়ে পড়েছিল কেশবপুরবাসী। ১৫ ফেব্রুয়ারি হঠাৎ করেই গা ঢাকা দেয় দুই বাহিনীর সদস্যরা। এরপরই দখলমুক্ত করে দুধ দিয়ে ধোয়া হয় কার্যালয়।

উদ্ধারত করা হাতুড়ি ও গামছা বাহিনীর অস্ত্র

উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি রাবেয়া ইকবাল জানান, সন্ত্রাসীরা গা ঢাকা দেয়ার পর কার্যালয় থেকে দুটি ধারালো বেকী, চারটি তলোয়ার, একটি কিরিচ উদ্ধার করে পুলিশ।

উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এস.এম রুহুল আমীন বলেন, ছয় বছর আমরা কার্যালয়ে ঢুকতে পারিনি। এখানে বসেই হাতুড়ি বাহিনী প্রধান খন্দকার আব্দুল আজিজ, গামছা বাহিনী প্রধান খন্দকার শরিফুল ইসলামের নেতৃত্বে উপজেলার বিভিন্ন স্থানে ঘের দখল, মাদক ব্যবসা ও অন্যান্য সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড পরিচালনা করা হতো। কেশবপুরবাসী সবসময় আতঙ্কে থাকতো।

কেশবপুর থানার ওসি মোহাম্মদ আবু সাঈদ বলেন, দুই সন্ত্রাসী বাহিনীর প্রধানদের বিরুদ্ধে কেশবপুর, মণিরামপুর থানায় অসংখ্য মামলা রয়েছে। অস্ত্র উদ্ধারের ঘটনায় জিডি করা হয়েছে। তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর