Alexa সতীন সহ্য করতে না পেরে স্বামীকে হত্যা

ঢাকা, মঙ্গলবার   ২৩ জুলাই ২০১৯,   শ্রাবণ ৮ ১৪২৬,   ১৯ জ্বিলকদ ১৪৪০

সতীন সহ্য করতে না পেরে স্বামীকে হত্যা

চট্টগ্রাম প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৮:২২ ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯   আপডেট: ১৮:৪৪ ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

অভিযুক্ত আশা

অভিযুক্ত আশা

সতীনকে সহ্য করতে না পেরে স্বামীকে হত্যা করেছে এক স্ত্রী। এ ঘটনায় স্ত্রীকে আটক করেছে পুলিশ।

আটক আশা আক্তার বগুড়া সদরের ঠনঠনিয়া নতুনপাড়ার আব্দুল আজিজের মেয়ে।

বুধবার দুপুরে সিএমপি কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানিয়েছেন নগর পুলিশের অ্যাডিশনাল কমিশনার (ট্রাফিক) কুসুম দেওয়ান।

তিনি বলেন, শামীম হত্যার অভিযোগে বগুড়া থেকে আশাকে গ্রেফতার করা হয়। সে স্বামীকে হত্যার কথা স্বীকার করেছে। তিনি আরো বলেন, ফেইসবুকের মাধ্যমে মো. শামীম ও মোসা. আশা আক্তারের পরিচয় হয়। শামীম নিজেকে অবিবাহিত বলে বিয়ে করে তালাকপ্রাপ্ত আশাকে। আশার বাবার বাড়িতে বিভিন্ন সময়ে শামিম থাকলে ঝগড়া হতো। বিয়ের কয়েকদিন পর শামীমের প্রথম বিয়ের কথা জেনে ও টাকা নেয়ার ক্ষোভে শামীমকে জবাই করে হত্যা করে।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম নগর পুলিশের উপ-কমিশনার (পশ্চিম) ফারুক উল হক, অ্যাডিশনাল ডেপুটি-কমিশনার (পশ্চিম) মো. কামরুল ইসলাম, সহকারী কমিশনার (পাহাড়তলী) পঙ্কজ বড়ুয়া, পাহাড়তলী থানার ওসি) সদীপ কুমার দাশ ।

পাহাড়তলী থানার এসআই অর্ণব বড়ুয়া বলেন, দ্বিতীয় স্বামীর প্রথম বিয়ের কথা জেনে চট্টগ্রামে আসেন আশা আক্তার। শনিবার সকালে স্বামী-স্ত্রী পরিচয় দিয়ে পাহাড়তলী থানার আবদুল আলি নগরের ইউসুফ মিয়ার কলোনিতে বাসা ভাড়া নেন। বগুড়া থেকে আনা ছুরি দিয়ে দুপুরে শামীমকে জবাই করে হত্যা করেন আশা। পরে তিনি বগুড়া পালিয়ে যান। পরে ছুরি উদ্ধার ও প্রযুক্তি সাহায্যে মঙ্গলবার রাতে আশাকে গ্রেফতার করা হয়।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকেএ