শ্রমিকদের বেতনের টাকা ডাকাতি, অবশেষে ১১ লাখ টাকা উদ্ধার

ঢাকা, শনিবার   ০৪ এপ্রিল ২০২০,   চৈত্র ২১ ১৪২৬,   ১০ শা'বান ১৪৪১

Akash

শ্রমিকদের বেতনের টাকা ডাকাতি, অবশেষে ১১ লাখ টাকা উদ্ধার

বরগুনা প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২০:০১ ১০ মার্চ ২০২০  

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

পায়রা তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের তিন জনশক্তি কোম্পানির কোটি টাকা ডাকাতির ঘটনায় রাহাত ফকির ও সেলিম হাওলাদার নামে দুই ডাকাতকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এ সময় ডাকাতির সাড়ে ১১ লাখ টাকা উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ ও কোম্পানি সূত্রে জানা গেছে, আরইডব্লিউ, এসই ডব্লিউ ও জেপি ট্রেডার্স নামে তিনটি জনশক্তি সাপ্লাই কোম্পানি পায়রা তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের শ্রমিক সরবরাহ করে আসছিল। ওই তিন কোম্পানির নামে পাঁচ শতাধিক শ্রমিক পায়রা তাপ বিদ্যুৎ কাজ করেন। জানুয়ারি মাসের ওই শ্রমিকদের বেতন দেয়ার জন্য বরিশাল প্রিমিয়ার ব্যাংক থেকে আর ই ডব্লিউ সাড়ে ১২ লাখ, এস ই ডব্লিউ ৩৬ লাখ ও জেপি ট্রেডার্স ৫২ লাখ টাকা উত্তোলন করে কলাপাড়া উপজেলার তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের দিকে মাইক্রোবাস যোগে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিলো।

পথিমধ্যে আমতলী-কুয়াকাটা মহাসড়কের টিয়াখালী কলেজ সংলগ্ন স্থানে একটি ভ্যান গাড়ি ও বাঁশ ফেলে মাইক্রোবাসের গতিরোধ করে। পরে পিছন দিক থেকে পাঁচ-ছয়টি মোটরসাইকেলে আসা ডাকাত দল অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে টিয়াখালী কাঁচা সড়কে নিয়ে যায়। ওইখানে নিয়ে গাড়িতে থাকা কোম্পানির লোকজনকে বেধড়ক মারধর করে টাকার ব্যাগ ছিনিয়ে নেয়। 

পুলিশ খবর পেয়ে তাৎক্ষণিক মাইক্রোচালক আবু বক্করকে গ্রেফতার করে। আবু বক্করের তথ্যানুসারে আমতলী থানার ওসি আবুল বাশারের নেতৃত্বে একদল পুলিশ ওই সময় নাজমুল, বেল্লাল, সোলায়মান ও সুমন প্যাদাকে গ্রেফতার করে।
 
এ ঘটনায় আরই ডব্লিউ কোম্পানির পরিচালক মো. হোসেন বাদী হয়ে আমতলী থানায় ডাকাতি মামলা দায়ের করেন।
 
আসামিদের জিজ্ঞাসাবাদে সোমবার রাতে আমতলী থানার ওসি আবুল বাশারের নেতৃত্বে এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত সদর ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান মো. জালাল উদ্দিন ফকিরের ছেলে রাহাত ফকিরকে কলাপাড়া উপজেলা গামুরতলা গ্রাম ও তারিকাটা গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য বাহাদুর হাওলাদারের ছেলে সেলিম হাওলাদারকে চট্টগ্রাম জেলার বায়েজিদ থানা এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়। এ সময় জালাল ফকিরের ছেলে রাহত ফকিরের থেকে সাড়ে ১১ লাখ টাকা উদ্ধার করা হয়।

মঙ্গলবার দুই ডাকাতকে আমতলী সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিট্রেট আদালতে পাঠানো হয়েছে। আদালতের বিচারক মো. সাকিব হোসেন তাদের জেল-হাজতে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছেন। 

ওসি মো. আবুল বাশার বলেন, তিন জনশক্তি কোম্পানির ডাকাতির ঘটনায় জড়িত দুই ডাকাতকে গ্রেফতার করে আদালতে পাঠানো হয়েছে। ডাকাত রাহাত ফকিরের কাছ থেকে সাড়ে ১১ লাখ টাকা উদ্ধার করা হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএম